নারী নির্যাতন বন্ধে মানসিকতার পরিবর্তন জরুরী

প্রকাশিত : ৬ মার্চ ২০২১

নারী ও শিশুর প্রতি জেন্ডারভিত্তিক সহিংসতা বন্ধে পুরুষতান্ত্রিক মানসিকতা ও ধ্যান ধারণার পরিবর্তন জরুরী। নারী প্রাতিষ্ঠানিকভাবে শিক্ষিত কিংবা শিক্ষার আলোহীন, ঘরে কিংবা বাইরে, শিশু অথবা বৃদ্ধ যাই হোক না কেন, তাকে হয়রানি, নির্যাতন ও বাধার সম্মুখিন হতে হয় প্রতিদিন। তাই প্রয়োজন সমাজের দৃষ্টিভঙ্গির পরিবর্তন, আর এর শুরু হতে হবে পরিবার থেকেই। জনসচেতনতার পাশাপাশি আইনের কার্যকর প্রয়োগ নিশ্চিত না করলে এই সহিংসতা বন্ধ করা সম্ভব নয়। উদ্ভাবনী নীতি গ্রহনের পাশাপাশি পুরুষ এবং ধর্মীয় নেতাদের সম্পৃক্ত করে সহিংসতা হ্রাস করতে সমন্বিত উদ্যোগ গ্রহনে এগিয়ে আসতে হবে। বরিশালে নারী ও শিশুর প্রতি সহিংসতা বন্ধে উদ্ভাবনী নীতি গ্রহণে তরুণ ও সরকারি কর্মকর্তাদের সাথে নীতি সংলাপ অনুষ্ঠানের বক্তারা এসব কথা বলেছেন।

‘করোনাকালে নারী নেতৃত্ব, গড়বে নতুন সমতার বিশ্ব’ এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে শনিবার (৬ মার্চ) বেলা ১১ টায় বরিশালে জেলা প্রশাসক সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত উদ্ভাবনী নীতি সংলাপে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন স্থানীয় সরকার বিভাগের উপ-পরিচালক মো: শহিদুল ইসলাম। আন্তর্জাতিক নারী দিবস উপলক্ষে উন্নয়ন সংস্থা ওয়ার্ল্ড ভিশন বাংলাদেশের সহযোগিতায় এ সংলাপের আয়োজন করে বরিশাল ইয়ুথ ফোরাম ও প্রতীকি যুব সংসদ।

প্রতীকি যুব সংসদের চেয়ারপার্সন মো: আমিনুল ইসলামের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বরিশাল মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক দিলারা খানম, সনাক বরিশালের সভাপতি শাহ সাজেদা, জেলা প্রবেশন কর্মকর্তা সাজ্জাদ পারভেজ ও ওয়ার্ল্ড ভিশন বাংলাদেশের ফিল্ড অ্যাডভোকেসি ও অ্যাকাউন্টিবিলিটি কো-অর্ডিনেটর সুরভী বিশ্বাস । অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন বরিশাল ভিকটিম সার্পোট সেন্টারের ইনচার্জ হোসনেয়ারা খানম, উপজেলা সহকারী যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা খলিলুর রহমান জয়িতা বিজয়ী নারীনেত্রী হাসিনা বেগম নীলা, বরিশাল মহিলা কল্যাণ সংস্থার পরিচালক কাওসার পরভীন, ওয়ার্ল্ড ভিশন এপিসি ম্যানেজার লিটন মন্ডল, হিন্দু ম্যারেজ রেজিস্টার মুক্তি বালা, বরিশাল যুব ফোরামের সদস্য ঊর্মি আক্তার, প্রতীকি যুব সংসদের প্রজেক্ট ম্যানেজার ময়ূরী আক্তার টুম্পা প্রমুখ।

আপনার মতামত লিখুন :