হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে বিনা মূল্যে টেলিফোন সুবিধা

  প্রকাশিত হয়েছেঃ  ০১:৩৪ পিএম, ১৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০
ছবি : সংগৃহীত

ঢাকার হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে এবার বিনা মূল্যে টেলিফোন সুবিধা চালু করেছে বিটিসিএল। বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষের উদ্যোগে বিমানবন্দরে ফ্রি টেলিফোনের এ বুথ বসানো হয়। ফলে বিদেশি পর্যটক কিংবা প্রবাসী, যে কেউই বিমানবন্দরে নেমে কোনো ফি পরিশোধ ছাড়াই প্রয়োজনীয় ব্যক্তির সঙ্গে যোগাযোগ করতে পারবেন।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়, গত ৩ ফেব্রুয়ারি থেকে শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরকে আরও যাত্রীবান্ধব করতে বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষের উদ্যোগে বিমানবন্দরে ফ্রি টেলিফোন বুথ বসিয়েছে বিটিসিএল। ওইদিন থেকে প্রবাসীরা দেশে ফিরে এখান থেকে কল করে কথা বলতে পারছেন। বিমানবন্দরের ইমিগ্রেশন পার হওয়ার পরই রয়েছে এ টেলিফোন বুথটি। বিমানবন্দরের ভেতরে বিভিন্ন মোবাইল অপারেটর কোম্পানির বিক্রয় কেন্দ্র থেকে পাসপোর্ট ইস্যু করে সিম কিনে এখান থেকে কথা বলতে পারবেন যে কেউ।

সোশ্যাল মিডিয়ায় এ নিয়ে পোস্ট দিতেও দেখা গেছে। ফেসবুকে টব হেল্প লাইন নামের গ্রুপে মেহেদী হাসান ইফতি নামে একজন লিখেছেন, হযরত শাহজালাল বিমানবন্দরে নেমে ফ্রিতে কল করে যোগাযোগ করুন প্রিয়জনদের সঙ্গে। বিমানবন্দরে নামার পর আমাদের দরকার পড়ে রিসিভ করতে আসা প্রিয়জনদের সঙ্গে ফোনে যোগাযোগ করে অবস্থান নিশ্চিত করা। কিন্তু সে সময় দেখা যায় অনেকের নানা ধরনের বিপত্তি। যেমন কারও সিম থাকে না বা সিম থাকলে টাকা থাকে না। আবার দুটোই আছে, কিন্তু মোবাইলের চার্জ নেই। এমতাবস্থায় কী করবেন? সেজন্য বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষ থেকে ফ্রি টেলিফোনের ব্যবস্থা করা হয়েছে প্রবাসীদের জন্য।

ইমিগ্রেশন পার হওয়ার পরই রয়েছে এ টেলিফোন বুথটি। কথা বলুন ফ্রিতে। তাছাড়া বিমানবন্দরে যে মোবাইল অপারেটর কোম্পানিগুলো আছে সেখান থেকে পাসপোর্টের মাধ্যমেও সিম ক্রয় করতে পারবেন। জাতীয় পরিচয়পত্র লাগবে না। বিষয়টি নিয়ে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের পরিচালক গ্রুপ ক্যাপ্টেন তৌহিদ উল আহসান বলেন, বিমানবন্দরকে আরও যাত্রীবান্ধব করতে বিনা মূল্যে টেলিফোন সুবিধা চালু করা হয়েছে।

আপনার মতামত লিখুন :