আদালতের নির্দেশে এডভোকেট কমিশনারের ভূমি পরিদর্শন

মশাহিদ আহমদ, মৌলভীবাজার: কুলাউড়ায় পুলিশের উপস্থিতিতে জবরদখলকৃত ভূমি পরিদর্শন করেছেন এডভোকেট কমিশনার। গত ৩১ অক্টোবর বিকালে মৌলভীবাজার যুগ্ন জেলা জজ ১ম আদালতের (মোকদ্দমা নং- ৯৮/১৮ইং স্বত্ত) নির্দেশে এডভোকেট কমিশনার মোঃ মনজুরুল মাহবুব আলম সরেজমিন উক্ত জবরদখলকৃত ভূমি পরিদর্শন করেন। এসময় তার সাথে ছিলেন এডভোকেট অঞ্জন কুমার সুত্রধর ও এডভোকেট হাবিবুর রহমান। উপস্থিত ছিলেন- বিবাদীপক্ষের আইনজীবি এডভোকেট রমাকান্ত দাশ গুপ্ত।

 

উপজেলার ৬নং কাদিপুর ইউনিয়নের পূর্ব মনসুর গ্রামের মোহাম্মদ ছকরু মিয়া গংদের মৌরসীসুত্রে ভোগদখলাধীন মনসুরনিজ মৌজাধীন এসএ রেকর্ডীয় ৬৫নং জেএলভূক্ত ৮৭নং খতিয়ানের অন্তর্গত ১৫৬০, ১৬২৩ ও ১৫৪৯নং দাগে ২.৬৭ একর ভূমির মৌরসী সূত্রে মালিকপক্ষের ছকরু মিয়া ও তার পুত্র জুয়েল আহমদকে একটি সাজানো মামলায় কুলাউড়া থানার পুলিশ গত ৭ অক্টোবর রাত ৩টার দিকে গ্রেফতার করে থানায় আটকে রাখে এবং সকালে ব্যাজবিহীন পোষাকে (ইউনিফর্মে নামফলক ছাড়া) কুলাউড়া থানার এসআই জহিরুল ইসলাম তালুকদার, এএসআই মাহবুব, কং/২৪৭ আব্দুল কুদ্দুস, কং/৮৪৯ অলক চন্দ্র দাশ ও কং/আসমা ঘটনাস্থলে উপস্থিত থেকে মালিকপক্ষের লোকজনকে বাড়ী থেকে বের হতে না দিয়ে বিবাদীপক্ষের লোকজনকে উক্ত ভূমি জবরদখলে সহায়তা করতে থাকে।

 

এসময় পুলিশের মারমুখী আচরণে নারী-পুরুষ ও শিশুরা আতংকিত হয়ে পড়েন এবং সেলিনা বেগম নামীয় এক মহিলা ঘটনাস্থলে অজ্ঞান হয়ে পড়েন। এ ঘটনা শুরু হবার কিছুক্ষণ পর জেলাশহরের কয়েকজন সাংবাদিক ঘটনাস্থলে উপস্থিত ও পুলিশকে চ্যালেঞ্জ করলে জবরদখল কার্যক্রমটি সেদিনকার মতো ভেস্তে যায়। অপরদিকে, সাজানো মামলায় গ্রেফতারকৃত ছকরু মিয়া ও তার পুত্র জুয়েল আহমদকে পুলিশ পরদিন ৮ অক্টোবর দুপুর ২টার দিকে আদালতে প্রেরণ করে। জবরদখলে সহায়তাকারী কুলাউড়া থানার এসআই জহিরুল ইসলাম তালুকদার এ সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে জানান- ওসি স্যার ও উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশে ঘটনাস্থলে এসে অবস্থান নিয়েছি।

 

আপনাদের পোষাকে নামফলক নেই কেন- এ প্রশ্নের জবাবে তিনি থতমত খেয়ে প্রসঙ্গটি এড়িয়ে গিয়ে তিনিসহ উপস্থিত পুলিশ সদস্যদের নাম ও পদবীর বিবরণ দেন। এরপর সাংবাদিকরা ঘটনাস্থল ত্যাগ করেন। পরবর্তীতে গত ১২ অক্টোবর পুণরায় কুলাউড়া থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত থেকে প্রতিপক্ষকে দিয়ে উক্ত ভূমিতে সীমানা বেড়া নির্মান করিয়ে নেয়। এসময় উক্ত ভূমি সংক্রান্ত স্বত্ত্ব মামলাসহ সকল মামলার কাগজাত প্রদর্শন করা সত্তেও পুলিশ তা আমলে না নিয়ে পুলিশ তাদেরকে বাড়ী থেকে বের হতে দেয়নি।

 

সর্বশেষ ঐ নিরিহ ভূমি মালিক মৌলভীবাজার যুগ্ন জেলা জজ ১ম আদালতের (মোকদ্দমা নং- ৯৮/১৮ইং স্বত্ত) দেঃকাঃবিঃ আইনের ৩৯নং আদেশের ১নং রুলের বিধান মতে অন্তবর্তীকালীন নিশেধাজ্ঞার প্রার্থনা করলে বিজ্ঞ আদালত তা আমলে নিয়ে এডভোকেট মোঃ মনজুরুল মাহবুব আলমকে কমিশনার নিয়োগ করে উক্ত জবরদখলকৃত ভূমি সরেজমিন পরিদর্শন পূর্বক প্রতিবেদন দাখিলের আদেশ দেন। এর প্রেক্ষিতে তিনি গত ৩১ অক্টোবর বিকালে জবরদখলকৃত ভূমি পরিদর্শন করেন।

নিউজটি শেয়ার করুন:

সর্বশেষ আপডেট



» মৌলভীবাজারে অতিরিক্ত দাম লিখে বিক্রয় করার অপরাধে মিঠাই বাজারকে জরিমানা

» বেনাপোল পুটখালী সীমান্ত থেকে ৪৫ বোতল ফেন্সিডিল সহ অাটক-১

» আজ অর্ধশত হলে মুক্তি পেল “মিস্টার বাংলাদেশ”

» বিমানে মদ না পেয়ে আইরিশ নারীর কাণ্ড! ভিডিও

» জাতীয় পার্টি লাঙ্গল প্রতীকেই নির্বাচন করবে: মহাসচিব

» অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচন অনুষ্ঠানে সম্পাদকদের সঙ্গে ঐক্যফ্রন্টের বৈঠক

» গনসংযোগ ও মতবিনিময় সভায় মনোনয়ন প্রত্যাশী সোহাগ: তৃণমুল নেতাকর্মিদের প্রত্যাশা পুরণে নিঃস্বার্থ ভাবে কাজ করার অঙ্গীকার

» শার্শার উলাশীতে দূর্বত্তদের বোমা হামলায় যুবলীগ নেতাসহ আহত-৩

» রাজধানীর নয়াপল্টনে পুলিশের উপর হামলার প্রতিবাদে ঝিনাইদহে বিক্ষোভ মিছিল

» ঝিনাইদহের ঘোড়শাল ইউনিয়নে গ্রাম-বাংলার ঐতিহ্যবাহী লাঠিখেলা অনুষ্ঠিত

লাইক দিয়ে সংযুক্ত থাকুন

ব্যবস্থাপনা সম্পাদক : মো: আবুল কালাম আজাদ, খোকন
প্রকাশক ও প্রধান সম্পাদক : কামাল হোসেন খান
সম্পাদক : এডভোকেট মো: ফেরদৌস খান
বার্তা সম্পাদক : মো: সো‌হেল অাহ‌ম্মেদ
মফস্বল বিভাগ প্রধান: উত্তম কুমার হাওলাদার
Email: info@kuakatanews.com
যোগাযোগ: বাড়ী- ৫০৬/এ, রোড- ৩৫,
মহাখালী, ডি ও এইচ এস, ঢাকা- ১২০৬,
ফোন: +৮৮ ০১৭৩১ ৬০০ ১৯৯, ৯৮৯১৮২৫,
বার্তা এবং বিজ্ঞাপন : + ৮৮ ০১৬৭৪ ৬৩২ ৫০৯।
বিজ্ঞাপন এবং নিউজ : + ৮৮ ০১৭১৬ ৮৯২ ৯৭০।
News: editor.kuakatanews@gmail.com
Desing & Developed BY PopularITLtd.Com
আজ শনিবার, ১৭ নভেম্বর ২০১৮ খ্রিষ্টাব্দ, ৩রা অগ্রহায়ণ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

আদালতের নির্দেশে এডভোকেট কমিশনারের ভূমি পরিদর্শন

ইউটিউবে সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

মশাহিদ আহমদ, মৌলভীবাজার: কুলাউড়ায় পুলিশের উপস্থিতিতে জবরদখলকৃত ভূমি পরিদর্শন করেছেন এডভোকেট কমিশনার। গত ৩১ অক্টোবর বিকালে মৌলভীবাজার যুগ্ন জেলা জজ ১ম আদালতের (মোকদ্দমা নং- ৯৮/১৮ইং স্বত্ত) নির্দেশে এডভোকেট কমিশনার মোঃ মনজুরুল মাহবুব আলম সরেজমিন উক্ত জবরদখলকৃত ভূমি পরিদর্শন করেন। এসময় তার সাথে ছিলেন এডভোকেট অঞ্জন কুমার সুত্রধর ও এডভোকেট হাবিবুর রহমান। উপস্থিত ছিলেন- বিবাদীপক্ষের আইনজীবি এডভোকেট রমাকান্ত দাশ গুপ্ত।

 

উপজেলার ৬নং কাদিপুর ইউনিয়নের পূর্ব মনসুর গ্রামের মোহাম্মদ ছকরু মিয়া গংদের মৌরসীসুত্রে ভোগদখলাধীন মনসুরনিজ মৌজাধীন এসএ রেকর্ডীয় ৬৫নং জেএলভূক্ত ৮৭নং খতিয়ানের অন্তর্গত ১৫৬০, ১৬২৩ ও ১৫৪৯নং দাগে ২.৬৭ একর ভূমির মৌরসী সূত্রে মালিকপক্ষের ছকরু মিয়া ও তার পুত্র জুয়েল আহমদকে একটি সাজানো মামলায় কুলাউড়া থানার পুলিশ গত ৭ অক্টোবর রাত ৩টার দিকে গ্রেফতার করে থানায় আটকে রাখে এবং সকালে ব্যাজবিহীন পোষাকে (ইউনিফর্মে নামফলক ছাড়া) কুলাউড়া থানার এসআই জহিরুল ইসলাম তালুকদার, এএসআই মাহবুব, কং/২৪৭ আব্দুল কুদ্দুস, কং/৮৪৯ অলক চন্দ্র দাশ ও কং/আসমা ঘটনাস্থলে উপস্থিত থেকে মালিকপক্ষের লোকজনকে বাড়ী থেকে বের হতে না দিয়ে বিবাদীপক্ষের লোকজনকে উক্ত ভূমি জবরদখলে সহায়তা করতে থাকে।

 

এসময় পুলিশের মারমুখী আচরণে নারী-পুরুষ ও শিশুরা আতংকিত হয়ে পড়েন এবং সেলিনা বেগম নামীয় এক মহিলা ঘটনাস্থলে অজ্ঞান হয়ে পড়েন। এ ঘটনা শুরু হবার কিছুক্ষণ পর জেলাশহরের কয়েকজন সাংবাদিক ঘটনাস্থলে উপস্থিত ও পুলিশকে চ্যালেঞ্জ করলে জবরদখল কার্যক্রমটি সেদিনকার মতো ভেস্তে যায়। অপরদিকে, সাজানো মামলায় গ্রেফতারকৃত ছকরু মিয়া ও তার পুত্র জুয়েল আহমদকে পুলিশ পরদিন ৮ অক্টোবর দুপুর ২টার দিকে আদালতে প্রেরণ করে। জবরদখলে সহায়তাকারী কুলাউড়া থানার এসআই জহিরুল ইসলাম তালুকদার এ সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে জানান- ওসি স্যার ও উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশে ঘটনাস্থলে এসে অবস্থান নিয়েছি।

 

আপনাদের পোষাকে নামফলক নেই কেন- এ প্রশ্নের জবাবে তিনি থতমত খেয়ে প্রসঙ্গটি এড়িয়ে গিয়ে তিনিসহ উপস্থিত পুলিশ সদস্যদের নাম ও পদবীর বিবরণ দেন। এরপর সাংবাদিকরা ঘটনাস্থল ত্যাগ করেন। পরবর্তীতে গত ১২ অক্টোবর পুণরায় কুলাউড়া থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত থেকে প্রতিপক্ষকে দিয়ে উক্ত ভূমিতে সীমানা বেড়া নির্মান করিয়ে নেয়। এসময় উক্ত ভূমি সংক্রান্ত স্বত্ত্ব মামলাসহ সকল মামলার কাগজাত প্রদর্শন করা সত্তেও পুলিশ তা আমলে না নিয়ে পুলিশ তাদেরকে বাড়ী থেকে বের হতে দেয়নি।

 

সর্বশেষ ঐ নিরিহ ভূমি মালিক মৌলভীবাজার যুগ্ন জেলা জজ ১ম আদালতের (মোকদ্দমা নং- ৯৮/১৮ইং স্বত্ত) দেঃকাঃবিঃ আইনের ৩৯নং আদেশের ১নং রুলের বিধান মতে অন্তবর্তীকালীন নিশেধাজ্ঞার প্রার্থনা করলে বিজ্ঞ আদালত তা আমলে নিয়ে এডভোকেট মোঃ মনজুরুল মাহবুব আলমকে কমিশনার নিয়োগ করে উক্ত জবরদখলকৃত ভূমি সরেজমিন পরিদর্শন পূর্বক প্রতিবেদন দাখিলের আদেশ দেন। এর প্রেক্ষিতে তিনি গত ৩১ অক্টোবর বিকালে জবরদখলকৃত ভূমি পরিদর্শন করেন।

নিউজটি শেয়ার করুন:

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



সর্বাধিক পঠিত



ব্যবস্থাপনা সম্পাদক : মো: আবুল কালাম আজাদ, খোকন
প্রকাশক ও প্রধান সম্পাদক : কামাল হোসেন খান
সম্পাদক : এডভোকেট মো: ফেরদৌস খান
বার্তা সম্পাদক : মো: সো‌হেল অাহ‌ম্মেদ
মফস্বল বিভাগ প্রধান: উত্তম কুমার হাওলাদার
Email: info@kuakatanews.com
যোগাযোগ: বাড়ী- ৫০৬/এ, রোড- ৩৫,
মহাখালী, ডি ও এইচ এস, ঢাকা- ১২০৬,
ফোন: +৮৮ ০১৭৩১ ৬০০ ১৯৯, ৯৮৯১৮২৫,
বার্তা এবং বিজ্ঞাপন : + ৮৮ ০১৬৭৪ ৬৩২ ৫০৯।
বিজ্ঞাপন এবং নিউজ : + ৮৮ ০১৭১৬ ৮৯২ ৯৭০।
News: editor.kuakatanews@gmail.com

© Copyright BY KuakataNews.Com

Design & Developed BY PopularITLimited