মৌলভীবাজার অনলাইন প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন

মশাহিদ আহমদ, মৌলভীবাজার: কুলাউড়া উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা আনোয়ার এর বিরুদ্ধে মৌলভীবাজার অনলাইন প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করেছে এক ভুক্তভোগী পরিবার আজ ৬ অক্টোবর দুপুরে। ভুক্তভোগী লিখিত বক্তব্যে অভিযোগ করে বলেন- কুলাউড়া উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার আনোয়ার দীর্ঘ দিন যাবৎ অর্থাৎ ২০১১ সালের ১৯ সেপ্টেম্বর থেকে এক টানা ৮ বছর ধরে একই জায়গায় চাকুরী করে আসছেন। দীর্ঘদিন ধরে একই জায়গায় কর্মরত থাকায় সরকারি দায়িত্ব পালনে নানা অনিয়ম ও দুর্নীতিতে জড়িয়ে পড়েন।

 

বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সরকার কর্তৃক প্রদত্ত বিজ্ঞানের সরজ্ঞামাদি পৌঁছে দেয়ার নির্দেশনা থাকলেও সে তা না করে সংশ্লিষ্ট শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের উপর এই খরচের দায়িত্ব দিয়ে খরচের বরাদ্ধকৃত সরকারি টাকা আত্মসাৎ করছেন। অফিসেও নিয়মিত উপস্থিত থাকেননা। তিনি আরো বলেন- আমার সন্তানরা প্রবাসে থাকিয়া হাড় ভাঙ্গা পরিশ্রম করে দেশে টাকা পাঠায়। এ টাকা দিয়ে আমাদের সাংসারিক খরচ ও আনুসঙ্গিক আয়দায় আমরা করে থাকি। বাড়িতে আমি ও আমার স্বামী মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল খালিক একা থাকি। আমার পিতা: মো: হুছন উল্লা জীবিত থাকা অবস্থায় রাজনগর উপজেলার ৬নং টেংরা ইউনিয়নের আদিনাবাদ গ্রামের আব্দুল খালিকের সঙ্গে আমাকে বিয়ে দেন। বিয়ের কয়েক বছর পর আমার পিতার পরামর্শে চাটুরা গ্রামে আমার পিতার বাড়ির অনতি দুরের জমি খরিদ করিয়া সেখানে আমি বসবাস করে আসিতেছি। এমতাবস্থায় আমার ছোট ভাই মো: আনোয়ার আমার স্বামীর কাছে ৫ লাখ টাকা চাঁদা দাবি করে।

 

আমরা তার চাহিত ৫ লাখ টাকা চাঁদা দিতে অক্ষমতার কথা জানাইলে সে আমাদের বাড়ির পাশে থাকা জমি আমাদের কাছে বিক্রয় করতে ইচ্ছা প্রকাশ করে এবং এই জমির মূল্য বাবদ তাকে ২০ লাখ টাকা দেওয়ার জন্য বলে। কিন্তু আমি ও আমার স্বামী তাকে এত টাকা দিতে পারবো না এবং জমি কিনতে অপরাগতা প্রকাশ করি। এতে সে আমাদের উপর ক্ষিপ্ত হয়ে নানা ভাবে হুমকি ও হয়রানি করার ফন্দি আটে। এক পর্যায়ে আমাদের কেনা জায়গা জমি তার নিজের কব্জায় নেওয়ার জন্য আত্মসাৎ করাতে মৌলভীবাজারের ১ম যুগ্ম জেলা জজ আদালতে স্বত্ব মোকদ্দমা নং ৩৯/২০১৩ইং দায়ের করে। এ ছাড়াও এ্কই বছর একই আদালতে আরো ২টি মামলা দায়ের করে। একাধিক মামলায় জড়িয়ে নানা ভাবে আমাদেরকে হয়রানি করছে।

 

আনোয়ার বিগত বিএনপি সরকারের আমলে প্রথম থানা প্রজেক্ট কর্মকর্তা(টিপিও) হিসেবে চাকুরী নেওয়ার পর তার কিছুই ছিল না। কিন্তু ঘুষ দুর্নীতি আশ্রয় নিয়ে চাঁদাবাজি, সুদ ও নিয়োগ বাণিজ্য করে গত কয়েক বছরে অঢেল টাকার মালিক হয়েছে। দীর্ঘ দিন বাড়ির পাশে চাকুরী করার কারণে বিভিন্ন বিদ্যালয়ে শিক্ষক নিয়োগসহ নানা প্রকার অনিয়মে জড়িয়ে পড়েছে। শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষায় অংশ গ্রহণকারি প্রার্থীরা চাকুরী পাইয়ে দেওয়ার নামে অলিখিত চুক্তি মাধ্যমে লাখ লাখ টাকা অবৈধ পথে কামাই করছে। এই অবৈধ পথে আয়ের টাকা দিয়ে সে ইতিমধ্যে তার নিজের নামে ও স্ত্রী সন্তানের নামে মৌলভীবাজার শহরের গির্জাপাড়াসহ বিভিন্ন এলাকায় কয়েক কোটি টাকার জমি গোপনে ক্রয় করেছে বলে আমরা জানতে পেরেছি।

 

তাছাড়া বিভিন্ন ব্যাংকে নামে বেনামে একাউন্টে এবং এফ ডি আর করে কয়েক কোটি টাকা জমা আছে। এসব অনুসন্ধান করলেই তার আয় বহিভূত নগদ টাকা ও অঢেল সম্পদের পাহাড়ের সত্যতা পাওয়া যাবে। উপস্থিত সাংবাদিকদের ধন্যবাদ জানিয়ে বলেন- বঙ্গবন্ধু কন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনর ঘোষিত দেশে চলমান ঘুষ-দুর্নীতি বিরোধী অভিযানে দেশের স্বার্থে তার দুর্নীতির বিষয়টি নিরপেক্ষ ভাবে তদন্ত করে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য আপনাদের লেখনীর মাধ্যমে দুর্নীতি দমন বিভাগ ও সরকারের কাছে দাবি জানাই। এ সময় সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন- আনোয়ার বোনের জামাই মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল খালিক তার বড় বোন আলেয়া বেগম, রোকেয়া বেগম, ভাংগনা শফিক মিয়া, প্রতিবেশী মাম্মদ মিয়া, ইলিয়াছ আলী, আব্দুল খালিক (২), মোঃ জিলু মিয়া, শাহাব উদ্দিন প্রমুখ।

 

 

সংবাদটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে শেয়ার করুন

সর্বশেষ আপডেট



» আগামীকাল ফেনীর আলোচিত নুসরাত হ’ত্যা মা’মলার রায়

» জাতীয় শহীদ মিনারে ও দোয়েল চত্বরে লাখো প্রাথমিক শিক্ষকের ঢল

» অবশেষে আটক: গাছ কাটা নিয়ে বোল পাল্টালেন সেই নারী (ভিডিওসহ)

» পর্যটন কেন্দ্র কুয়াকাটায় জাতীয় নিরাপদ সড়ক দিবস পালিত

» রাস মোল ও গঙ্গাস্নান উৎযাপন উপলক্ষে কলাপাড়ায় প্রস্তুতি মুলক সভা

» নবীগঞ্জের ইনাতগঞ্জে সিএনজি চালক মামুনের হত্যাকারীর ফাঁসির দাবিতে মানববন্ধ

» “নীম পাতার” জাদুকরী উপকারিতা: মালয়েশিয়া হয়ে গেলো বিশেষ অনুষ্ঠান

» চট্টগ্রামে যুবককে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগে পুলিশের এসআই আটক

» সোনার চর হতে পারে পর্যটন স্পট

» নিরাপদ সড়ক দিবস উপলক্ষে দেশের সকল সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ব্যক্তিদের স্মরণে শ্রদ্ধাঞ্জলি প্রদান অনুষ্ঠিত হয়

লাইক দিয়ে সংযুক্ত থাকুন

ব্যবস্থাপনা সম্পাদক : মো: আবুল কালাম আজাদ, খোকন
প্রকাশক ও প্রধান সম্পাদক : কামাল হোসেন খান
সম্পাদক : এডভোকেট মো: ফেরদৌস খান
বার্তা সম্পাদক : মো: সো‌হেল অাহ‌ম্মেদ
সহ-সম্পাদক : নুরুজ্জামান কাফি
মফস্বল বিভাগ প্রধান: উত্তম কুমার হাওলাদার
যোগাযোগ: বাড়ী- ৫০৬/এ, রোড- ৩৫,
মহাখালী, ডি ও এইচ এস, ঢাকা- ১২০৬,
ফোন: +৮৮ ০১৭৩১ ৬০০ ১৯৯, ৯৮৯১৮২৫,
বার্তা এবং বিজ্ঞাপন : + ৮৮ ০১৬৭৪ ৬৩২ ৫০৯।
বিজ্ঞাপন এবং নিউজ : + ৮৮ ০১৭১৬ ৮৯২ ৯৭০।
News: editor.kuakatanews@gmail.com
Desing & Developed BY PopularITLtd.Com
আজ বৃহস্পতিবার, ২৪ অক্টোবর ২০১৯ খ্রিষ্টাব্দ, ৮ই কার্তিক ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

মৌলভীবাজার অনলাইন প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন

ইউটিউবে সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

মশাহিদ আহমদ, মৌলভীবাজার: কুলাউড়া উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা আনোয়ার এর বিরুদ্ধে মৌলভীবাজার অনলাইন প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করেছে এক ভুক্তভোগী পরিবার আজ ৬ অক্টোবর দুপুরে। ভুক্তভোগী লিখিত বক্তব্যে অভিযোগ করে বলেন- কুলাউড়া উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার আনোয়ার দীর্ঘ দিন যাবৎ অর্থাৎ ২০১১ সালের ১৯ সেপ্টেম্বর থেকে এক টানা ৮ বছর ধরে একই জায়গায় চাকুরী করে আসছেন। দীর্ঘদিন ধরে একই জায়গায় কর্মরত থাকায় সরকারি দায়িত্ব পালনে নানা অনিয়ম ও দুর্নীতিতে জড়িয়ে পড়েন।

 

বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সরকার কর্তৃক প্রদত্ত বিজ্ঞানের সরজ্ঞামাদি পৌঁছে দেয়ার নির্দেশনা থাকলেও সে তা না করে সংশ্লিষ্ট শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের উপর এই খরচের দায়িত্ব দিয়ে খরচের বরাদ্ধকৃত সরকারি টাকা আত্মসাৎ করছেন। অফিসেও নিয়মিত উপস্থিত থাকেননা। তিনি আরো বলেন- আমার সন্তানরা প্রবাসে থাকিয়া হাড় ভাঙ্গা পরিশ্রম করে দেশে টাকা পাঠায়। এ টাকা দিয়ে আমাদের সাংসারিক খরচ ও আনুসঙ্গিক আয়দায় আমরা করে থাকি। বাড়িতে আমি ও আমার স্বামী মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল খালিক একা থাকি। আমার পিতা: মো: হুছন উল্লা জীবিত থাকা অবস্থায় রাজনগর উপজেলার ৬নং টেংরা ইউনিয়নের আদিনাবাদ গ্রামের আব্দুল খালিকের সঙ্গে আমাকে বিয়ে দেন। বিয়ের কয়েক বছর পর আমার পিতার পরামর্শে চাটুরা গ্রামে আমার পিতার বাড়ির অনতি দুরের জমি খরিদ করিয়া সেখানে আমি বসবাস করে আসিতেছি। এমতাবস্থায় আমার ছোট ভাই মো: আনোয়ার আমার স্বামীর কাছে ৫ লাখ টাকা চাঁদা দাবি করে।

 

আমরা তার চাহিত ৫ লাখ টাকা চাঁদা দিতে অক্ষমতার কথা জানাইলে সে আমাদের বাড়ির পাশে থাকা জমি আমাদের কাছে বিক্রয় করতে ইচ্ছা প্রকাশ করে এবং এই জমির মূল্য বাবদ তাকে ২০ লাখ টাকা দেওয়ার জন্য বলে। কিন্তু আমি ও আমার স্বামী তাকে এত টাকা দিতে পারবো না এবং জমি কিনতে অপরাগতা প্রকাশ করি। এতে সে আমাদের উপর ক্ষিপ্ত হয়ে নানা ভাবে হুমকি ও হয়রানি করার ফন্দি আটে। এক পর্যায়ে আমাদের কেনা জায়গা জমি তার নিজের কব্জায় নেওয়ার জন্য আত্মসাৎ করাতে মৌলভীবাজারের ১ম যুগ্ম জেলা জজ আদালতে স্বত্ব মোকদ্দমা নং ৩৯/২০১৩ইং দায়ের করে। এ ছাড়াও এ্কই বছর একই আদালতে আরো ২টি মামলা দায়ের করে। একাধিক মামলায় জড়িয়ে নানা ভাবে আমাদেরকে হয়রানি করছে।

 

আনোয়ার বিগত বিএনপি সরকারের আমলে প্রথম থানা প্রজেক্ট কর্মকর্তা(টিপিও) হিসেবে চাকুরী নেওয়ার পর তার কিছুই ছিল না। কিন্তু ঘুষ দুর্নীতি আশ্রয় নিয়ে চাঁদাবাজি, সুদ ও নিয়োগ বাণিজ্য করে গত কয়েক বছরে অঢেল টাকার মালিক হয়েছে। দীর্ঘ দিন বাড়ির পাশে চাকুরী করার কারণে বিভিন্ন বিদ্যালয়ে শিক্ষক নিয়োগসহ নানা প্রকার অনিয়মে জড়িয়ে পড়েছে। শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষায় অংশ গ্রহণকারি প্রার্থীরা চাকুরী পাইয়ে দেওয়ার নামে অলিখিত চুক্তি মাধ্যমে লাখ লাখ টাকা অবৈধ পথে কামাই করছে। এই অবৈধ পথে আয়ের টাকা দিয়ে সে ইতিমধ্যে তার নিজের নামে ও স্ত্রী সন্তানের নামে মৌলভীবাজার শহরের গির্জাপাড়াসহ বিভিন্ন এলাকায় কয়েক কোটি টাকার জমি গোপনে ক্রয় করেছে বলে আমরা জানতে পেরেছি।

 

তাছাড়া বিভিন্ন ব্যাংকে নামে বেনামে একাউন্টে এবং এফ ডি আর করে কয়েক কোটি টাকা জমা আছে। এসব অনুসন্ধান করলেই তার আয় বহিভূত নগদ টাকা ও অঢেল সম্পদের পাহাড়ের সত্যতা পাওয়া যাবে। উপস্থিত সাংবাদিকদের ধন্যবাদ জানিয়ে বলেন- বঙ্গবন্ধু কন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনর ঘোষিত দেশে চলমান ঘুষ-দুর্নীতি বিরোধী অভিযানে দেশের স্বার্থে তার দুর্নীতির বিষয়টি নিরপেক্ষ ভাবে তদন্ত করে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য আপনাদের লেখনীর মাধ্যমে দুর্নীতি দমন বিভাগ ও সরকারের কাছে দাবি জানাই। এ সময় সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন- আনোয়ার বোনের জামাই মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল খালিক তার বড় বোন আলেয়া বেগম, রোকেয়া বেগম, ভাংগনা শফিক মিয়া, প্রতিবেশী মাম্মদ মিয়া, ইলিয়াছ আলী, আব্দুল খালিক (২), মোঃ জিলু মিয়া, শাহাব উদ্দিন প্রমুখ।

 

 

সংবাদটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে শেয়ার করুন

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



Click Here

সর্বশেষ আপডেট



সর্বাধিক পঠিত



About Us | Privacy Policy | Terms & Conditions | Contact Us | Sitemap
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক : মো: আবুল কালাম আজাদ, খোকন
প্রকাশক ও প্রধান সম্পাদক : কামাল হোসেন খান
সম্পাদক : এডভোকেট মো: ফেরদৌস খান
বার্তা সম্পাদক : মো: সো‌হেল অাহ‌ম্মেদ
সহ-সম্পাদক : নুরুজ্জামান কাফি
মফস্বল বিভাগ প্রধান: উত্তম কুমার হাওলাদার
যোগাযোগ: বাড়ী- ৫০৬/এ, রোড- ৩৫,
মহাখালী, ডি ও এইচ এস, ঢাকা- ১২০৬,
ফোন: +৮৮ ০১৭৩১ ৬০০ ১৯৯, ৯৮৯১৮২৫,
বার্তা এবং বিজ্ঞাপন : + ৮৮ ০১৬৭৪ ৬৩২ ৫০৯।
বিজ্ঞাপন এবং নিউজ : + ৮৮ ০১৭১৬ ৮৯২ ৯৭০।
News: editor.kuakatanews@gmail.com

© Copyright BY KuakataNews.Com

Design & Developed BY PopularITLimited