পিতা মাতার জন্য বৃদ্ধাশ্রম নয়

Spread the love
পিতার-মাতার পায়ের নিচে সন্তানের বেহেশত কথাটি আমরা প্রায় ভুলতে বসেছি।  বলা হয়ে থাকে যে আল্লাহর পরেই পিতা-মাতার স্থান।  কিন্তু আজকাল তাঁরা তাঁদের প্রাপ্য সম্মানটুকুই পাচ্ছে না।  পিতা-মাতা কত কষ্ট করে খেয়ে না খেয়ে আমাদের পড়ালেখা শেখায়, মানুষের মতো মানুষ করে তোলে কিন্তু একটু বড় হলেই এক শ্রেণির সন্তানেরা তাঁদের সম্মান করে না। বেশির ভাগ ক্ষেত্রে পিতা-মাতা একটু বৃদ্ধ হলেই তাঁদেরকে বৃদ্ধাশ্রমে রেখে আসে।
তাহলে এতো কষ্ট করে সন্তান লালন-পালন করার ফল কি তাঁরা পেল তাঁদের শেষ বয়সে? পিতা-মাতা সন্তানের খুশির জন্য তাঁদের সর্বস্ব ত্যাগ করে কিন্তু সন্তান হিসেবে আমরা কি তাঁদের যথাযথ মর্যাদা দিতে পারি। পিতা-মাতার জন্য বৃদ্ধাশ্রম একটি অভিশাপের নাম। প্রত্যক সন্তানের উচিৎ মা-বাবাকে বৃদ্ধ বয়সে তাঁদের পাশে রাখা।  তাঁদের শখ-আহ্লাদের কথা শুনে তা পূরণের যথাসাধ্য চেষ্টা করা। সন্তানের জন্য মা-বাবা এক অশেষ নিয়ামত। এই নিয়ামতকে অস্বীকার করার কোনো উপায় নেই। তাই সময় থাকতে আমরা পিতা-মাতাকে সম্মান-শ্রদ্ধা করি এবং বৃদ্ধাশ্রমকে “না” বলি।
মো.ওসমান গনি শুভ
শিক্ষার্থী, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়।
নিউজটি শেয়ার করুন:

সর্বশেষ আপডেট



» জাতীয় পার্টির নতুন চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্বভার গ্রহণ করেছেন জিএম কাদের

» পটুয়াখালীর গলাচিপায় জাতীয় মৎস্য সপ্তাহ পালিত

» যশোরের শার্শা উপজেলায় জাতীয় মৎস্য সপ্তাহ পালিত

» রাংঙ্গাবালী উপজেলায় বর্জ্রপাতে এক জনের মৃত্যু

» মৎস্য বন্দর মহিপুরে চলছে খাস জমি দখলের মাহোৎসব; যেন দেখার কেউ নেই

» জাতীয় মৎস্য সপ্তাহ/১৯ উপলক্ষে দশমিনায় সংবাদ সম্মেলন

» কলাপাড়ায় মৎস্য কর্মকর্তার সাথে সংবাদকর্মীদের মতবিনিময়

» মাদরাসা বোর্ডে পাসের হার ৮৮.৫৬ শতাংশ

» ৪১ প্রতিষ্ঠানের কেউ পাস করেনি

» রিফাত হত্যা মামলায় ৫ দিনের রিমান্ডে আয়েশা সিদ্দিকা মিন্নি

লাইক দিয়ে সংযুক্ত থাকুন

ব্যবস্থাপনা সম্পাদক : মো: আবুল কালাম আজাদ, খোকন
প্রকাশক ও প্রধান সম্পাদক : কামাল হোসেন খান
সম্পাদক : এডভোকেট মো: ফেরদৌস খান
বার্তা সম্পাদক : মো: সো‌হেল অাহ‌ম্মেদ
সহ-সম্পাদক : নুরুজ্জামান কাফি
মফস্বল বিভাগ প্রধান: উত্তম কুমার হাওলাদার
যোগাযোগ: বাড়ী- ৫০৬/এ, রোড- ৩৫,
মহাখালী, ডি ও এইচ এস, ঢাকা- ১২০৬,
ফোন: +৮৮ ০১৭৩১ ৬০০ ১৯৯, ৯৮৯১৮২৫,
বার্তা এবং বিজ্ঞাপন : + ৮৮ ০১৬৭৪ ৬৩২ ৫০৯।
বিজ্ঞাপন এবং নিউজ : + ৮৮ ০১৭১৬ ৮৯২ ৯৭০।
News: editor.kuakatanews@gmail.com
Desing & Developed BY PopularITLtd.Com
আজ বৃহস্পতিবার, ১৮ জুলাই ২০১৯ খ্রিষ্টাব্দ, ৩রা শ্রাবণ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

পিতা মাতার জন্য বৃদ্ধাশ্রম নয়

ইউটিউবে সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:
Spread the love
পিতার-মাতার পায়ের নিচে সন্তানের বেহেশত কথাটি আমরা প্রায় ভুলতে বসেছি।  বলা হয়ে থাকে যে আল্লাহর পরেই পিতা-মাতার স্থান।  কিন্তু আজকাল তাঁরা তাঁদের প্রাপ্য সম্মানটুকুই পাচ্ছে না।  পিতা-মাতা কত কষ্ট করে খেয়ে না খেয়ে আমাদের পড়ালেখা শেখায়, মানুষের মতো মানুষ করে তোলে কিন্তু একটু বড় হলেই এক শ্রেণির সন্তানেরা তাঁদের সম্মান করে না। বেশির ভাগ ক্ষেত্রে পিতা-মাতা একটু বৃদ্ধ হলেই তাঁদেরকে বৃদ্ধাশ্রমে রেখে আসে।
তাহলে এতো কষ্ট করে সন্তান লালন-পালন করার ফল কি তাঁরা পেল তাঁদের শেষ বয়সে? পিতা-মাতা সন্তানের খুশির জন্য তাঁদের সর্বস্ব ত্যাগ করে কিন্তু সন্তান হিসেবে আমরা কি তাঁদের যথাযথ মর্যাদা দিতে পারি। পিতা-মাতার জন্য বৃদ্ধাশ্রম একটি অভিশাপের নাম। প্রত্যক সন্তানের উচিৎ মা-বাবাকে বৃদ্ধ বয়সে তাঁদের পাশে রাখা।  তাঁদের শখ-আহ্লাদের কথা শুনে তা পূরণের যথাসাধ্য চেষ্টা করা। সন্তানের জন্য মা-বাবা এক অশেষ নিয়ামত। এই নিয়ামতকে অস্বীকার করার কোনো উপায় নেই। তাই সময় থাকতে আমরা পিতা-মাতাকে সম্মান-শ্রদ্ধা করি এবং বৃদ্ধাশ্রমকে “না” বলি।
মো.ওসমান গনি শুভ
শিক্ষার্থী, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়।
নিউজটি শেয়ার করুন:

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



Click Here

সর্বশেষ আপডেট



সর্বাধিক পঠিত



About Us | Privacy Policy | Terms & Conditions | Contact Us | Sitemap
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক : মো: আবুল কালাম আজাদ, খোকন
প্রকাশক ও প্রধান সম্পাদক : কামাল হোসেন খান
সম্পাদক : এডভোকেট মো: ফেরদৌস খান
বার্তা সম্পাদক : মো: সো‌হেল অাহ‌ম্মেদ
সহ-সম্পাদক : নুরুজ্জামান কাফি
মফস্বল বিভাগ প্রধান: উত্তম কুমার হাওলাদার
যোগাযোগ: বাড়ী- ৫০৬/এ, রোড- ৩৫,
মহাখালী, ডি ও এইচ এস, ঢাকা- ১২০৬,
ফোন: +৮৮ ০১৭৩১ ৬০০ ১৯৯, ৯৮৯১৮২৫,
বার্তা এবং বিজ্ঞাপন : + ৮৮ ০১৬৭৪ ৬৩২ ৫০৯।
বিজ্ঞাপন এবং নিউজ : + ৮৮ ০১৭১৬ ৮৯২ ৯৭০।
News: editor.kuakatanews@gmail.com

© Copyright BY KuakataNews.Com

Design & Developed BY PopularITLimited