জিম্বাবুয়েকে টানা তৃতীয়বার হোয়াইটওয়াশ করল বাংলাদেশ

Spread the love

সিরিজের তৃতীয় ম্যাচে জিম্বাবুয়েকে হারিয়ে ফের ‘বাংলাওয়াশ’ করলো টাইগাররা। ইমরুল-সৌম্যের ঝড়ো সেঞ্চুরিতে অতিথিদিরে বিপক্ষে ৭ উইকেটের বড় ব্যবধানে জয় পায় বাংলাদেশ। চট্টগ্রাম জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে টস জিতে প্রথমে বল করার সিদ্ধান্ত নেন টাইগার অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা। তিনটি পরিবর্তন নিয়ে আজ মাঠে নামে স্বাগতিক বাংলাদেশ। ফজলে রাব্বী, মেহেদী হাসান মিরাজ ও মোস্তাফিজুর রহমানের পরিবর্তে দলে সুযোগ পেয়েছেন সৌম্য সরকার, আরিফুল হক ও আবু হায়দার রনি। এদিকে এ ম্যাচে দু’টি পরিবর্তন নিয়ে দল সাজায় মাসাকাদজার দল। তেন্ডাই চাতারা ও ব্র্যান্ডন মাভুতার পরিবর্তে দলে ফিরেছেন রিচার্ড নগারভা, ওয়েলিংটন মাসাকাদজা।

 

ব্যাট করতে নেমে দলীয় ৬ রানের মাথায় দুই উইকেট হারিয়ে চাপে পড়ে জিম্বাবুয়ে। সেখান থেকে দলকে টেনে তোলেন ব্রেন্ডন টেইলর ও শন উইলিয়ামস। টেইলর ও উইলিয়ামসের ব্যাট থেকে আসে ১৩২ রানের পার্টনারশিপ যা জিম্বাবুয়েকে ঘুরে দাঁড়াতে ভিত্তি গড়ে দেয়।শন উইলিয়ামসের দুর্দান্ত সেঞ্চুরিতে শেষ ম্যাচে বাংলাদেশকে ২৮৭ রানের টার্গেট দিলো জিম্বাবুয়ে। সুতরাং বাংলাদেশকে জিততে হলে ২৮৭ রান করতে হবে। শন উইলিয়ামস ১৪৩ বল খেলে ১০ চার ও ১ ছয়ে ১২৯ রান করে অপ্ররাজিত থাকেন। জিম্বাবুয়ের শিবিরে প্রথম আঘাত হানেন বাংলাদেশি অলরাউন্ডার মোহাম্মদ সাইফুদ্দিন। ইনিংসের ২য় ওভারের ৩য় বলে বোল্ড আউট হয়ে সাজ ঘরে ফিরে যান কেফা জুহওয়ো। তিনি করেন শূন্য রান।

 

দ্বিতীয় আঘাত হানেন পেসার আবু হায়দার রনি। তার ব্যক্তিগত দ্বিতীয় ওভারের ৪র্থ বলে বোল্ড আউটের শিকার হন জিম্বাবুয়ে ওপেনার হ্যামিল্টন মাসাকাদজা। তিনি করেন ২ রান। নাজমুল ইসলাম অপুর বলে ৭৫ রান করে মুশফিকের হাতে ক্যাচ দিয়ে টেইলর সাজ ঘরে ফিরেন। আউট হবার আগে টেইলর ৭২ বলে ৮ চার ও ৩ ছয় মেরে এই রান করেন। এরপর সিকান্দার রাজাকে নিয়ে এগিয়ে চলেন শন উইলিমস। চতুর্থ উইকেটে দুজন মিলে গড়ে তুলেন ৮৪ রানের পার্টনারশিপ। দুজনের ব্যাটে ৩৮ ওভারে জিম্বাবুয়ের দুইশ স্পর্শ করে জিম্বাবুয়ে। প্রতিরোধ গড়তে থাকা এই জুটিও ভাঙেন অপু্। ৪২তম ওভারের প্রথম বলে অপুর বলে সৌম্যর হাতে ক্যাচ দিয়ে ফিরেন রাজা। সাজঘরে ফেরার আগে ৫১ বলে ১ ছয় ও ২ বলে ২০ রান করেন এই অলরাউন্ডার।

 

পিটার মুরের সঙ্গে জুটি বাঁধেন উইলিয়ামস। রাজা ফেরার পরেই সেঞ্চুরি পূরণ করেছেন তিনি। এটি তার ক্যারিয়ারের দ্বিতীয় সেঞ্চুরি। এরপর আরিফুল হকের সরাসরি থ্রোয়ে রান আউট হয়ে ফিরে যান পিটার মুর। শেষের ৬২ রানের পঞ্চম উইকেট জুটি ভাঙলে চিগাম্বুরার নেমে ১ রান যোগ করেন। উইলিয়ামসের ক্যারিয়ার সেরা ১০ চার ১ ছক্কায় গড়া ইনিংসের উপর ভর করে ইনিংসে শেষে ২৮৬ রানে পুঁজি পায় জিম্বাবুয়ে।  বাংলাদেশের হয়ে বল হাতে ৮ ওভারে ৫৮ রান দিয়ে ২ উইকেট নেন নাজমুল অপু। বাকি একটি করে উইকেট সংগ্রহ করেন আবু হায়দার রনি এবং মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন। বাংলাওয়াশের লক্ষে ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই ধাক্কা খায় বাংলাদেশ। প্রথম বলেই ফিরে যান লিটন দাস। এরপর থেকেই শুরু হয় ইমরুল-সৌম্যের তাণ্ডব। জিম্রবাবুয়ের বোলারদের যেন পাড়ার বোলার বানিয়ে ফেলেছিলেন দুই টাইগার ব্যাটসম্যান ইমরুল কায়েস ও সৌম্য সরকার।

 

সৌম্য সরকার ও ইমরুল কায়েসের সেঞ্চুরির সুবাদে ৪২.১ ওভারে সাত উইকেট হাতে রেখে ম্যাচ জিতে নেয় টাইগাররা। সৌম্য সরকার দলে সুযোগ পেয়েই আজ দুর্দান্ত একটি ইনিংস খেলেছেন। ৯২ বলে ১১৭ রান করে আউট হন তিনি। ওয়ানডে ক্যারিয়ারে এটি তার দ্বিতীয় সেঞ্চুরি। এই রান করার পথে তিনি নয়টি চার মারেন ও ছয়টি ছক্কা হাঁকান। সাড়ে তিন বছরেরও বেশি সময় পর সেঞ্চুরি দেখা পেলেন এই টাইগার ক্রিকেটার। গত দুই ম্যাচে ভালো খেলা ইমরুল কায়েস আজ ১১৫ রান করে আউট হন। ওয়ানডেতে এটি তার চতুর্থ সেঞ্চুরি। এই সিরিজের প্রথম ম্যাচেও ইমরুল কায়েস সেঞ্চুরি করেছিলেন। ওই ম্যাচে ১৪৪ রান করেছিলেন তিনি। এরপর দ্বিতীয় ম্যাচে ৯০ রান করে আউট হন কায়েস।

নিউজটি শেয়ার করুন:

সর্বশেষ আপডেট



» গলাচিপায় ঝুঁকিপূর্ণ বিদ্যালয়ে পাঠদান

» কলাপাড়ায় গাঁজা সহ ব্যবসায়ী আটক

» এবার হাসপাতালে যাওয়ার পথে নার্সকে কুপিয়ে হত্যা

» গাছের সাথে বেঁধে গৃহবধূকে নির্যাতন

» খুনির সঙ্গে রিফাতের স্ত্রী মিন্নির ‘সম্পর্কের তথ্য’ ফাঁস

» দশমিনা-উলানিয়া সড়কের কারপিটিংপিচ উঠে খানা খন্দের সৃষ্টি

» দশমিনায় চাঁই ব্যবহারের ফলে: গল্পেরমত থেকে যাবে দেশী প্রজাতির মাছ

» কলাপাড়ায় গৃহবধু হত্যা মামলায় শ্বশুড় গ্রেফতার

» সীমান্ত প্রেসক্লাব বেনাপোলের প্রচার সম্পাদক রাসেলের উপর প্রাননাশের হুমকিতে থানায় জিডি

» কেরোসিনের চুলা বিস্ফোরণে তিন ছাত্রী দগ্ধ

লাইক দিয়ে সংযুক্ত থাকুন

ব্যবস্থাপনা সম্পাদক : মো: আবুল কালাম আজাদ, খোকন
প্রকাশক ও প্রধান সম্পাদক : কামাল হোসেন খান
সম্পাদক : এডভোকেট মো: ফেরদৌস খান
বার্তা সম্পাদক : মো: সো‌হেল অাহ‌ম্মেদ
সহ-সম্পাদক : নুরুজ্জামান কাফি
মফস্বল বিভাগ প্রধান: উত্তম কুমার হাওলাদার
যোগাযোগ: বাড়ী- ৫০৬/এ, রোড- ৩৫,
মহাখালী, ডি ও এইচ এস, ঢাকা- ১২০৬,
ফোন: +৮৮ ০১৭৩১ ৬০০ ১৯৯, ৯৮৯১৮২৫,
বার্তা এবং বিজ্ঞাপন : + ৮৮ ০১৬৭৪ ৬৩২ ৫০৯।
বিজ্ঞাপন এবং নিউজ : + ৮৮ ০১৭১৬ ৮৯২ ৯৭০।
News: editor.kuakatanews@gmail.com
Desing & Developed BY PopularITLtd.Com
আজ বৃহস্পতিবার, ২৭ জুন ২০১৯ খ্রিষ্টাব্দ, ১৩ই আষাঢ় ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

জিম্বাবুয়েকে টানা তৃতীয়বার হোয়াইটওয়াশ করল বাংলাদেশ

ইউটিউবে সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:
Spread the love

সিরিজের তৃতীয় ম্যাচে জিম্বাবুয়েকে হারিয়ে ফের ‘বাংলাওয়াশ’ করলো টাইগাররা। ইমরুল-সৌম্যের ঝড়ো সেঞ্চুরিতে অতিথিদিরে বিপক্ষে ৭ উইকেটের বড় ব্যবধানে জয় পায় বাংলাদেশ। চট্টগ্রাম জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে টস জিতে প্রথমে বল করার সিদ্ধান্ত নেন টাইগার অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা। তিনটি পরিবর্তন নিয়ে আজ মাঠে নামে স্বাগতিক বাংলাদেশ। ফজলে রাব্বী, মেহেদী হাসান মিরাজ ও মোস্তাফিজুর রহমানের পরিবর্তে দলে সুযোগ পেয়েছেন সৌম্য সরকার, আরিফুল হক ও আবু হায়দার রনি। এদিকে এ ম্যাচে দু’টি পরিবর্তন নিয়ে দল সাজায় মাসাকাদজার দল। তেন্ডাই চাতারা ও ব্র্যান্ডন মাভুতার পরিবর্তে দলে ফিরেছেন রিচার্ড নগারভা, ওয়েলিংটন মাসাকাদজা।

 

ব্যাট করতে নেমে দলীয় ৬ রানের মাথায় দুই উইকেট হারিয়ে চাপে পড়ে জিম্বাবুয়ে। সেখান থেকে দলকে টেনে তোলেন ব্রেন্ডন টেইলর ও শন উইলিয়ামস। টেইলর ও উইলিয়ামসের ব্যাট থেকে আসে ১৩২ রানের পার্টনারশিপ যা জিম্বাবুয়েকে ঘুরে দাঁড়াতে ভিত্তি গড়ে দেয়।শন উইলিয়ামসের দুর্দান্ত সেঞ্চুরিতে শেষ ম্যাচে বাংলাদেশকে ২৮৭ রানের টার্গেট দিলো জিম্বাবুয়ে। সুতরাং বাংলাদেশকে জিততে হলে ২৮৭ রান করতে হবে। শন উইলিয়ামস ১৪৩ বল খেলে ১০ চার ও ১ ছয়ে ১২৯ রান করে অপ্ররাজিত থাকেন। জিম্বাবুয়ের শিবিরে প্রথম আঘাত হানেন বাংলাদেশি অলরাউন্ডার মোহাম্মদ সাইফুদ্দিন। ইনিংসের ২য় ওভারের ৩য় বলে বোল্ড আউট হয়ে সাজ ঘরে ফিরে যান কেফা জুহওয়ো। তিনি করেন শূন্য রান।

 

দ্বিতীয় আঘাত হানেন পেসার আবু হায়দার রনি। তার ব্যক্তিগত দ্বিতীয় ওভারের ৪র্থ বলে বোল্ড আউটের শিকার হন জিম্বাবুয়ে ওপেনার হ্যামিল্টন মাসাকাদজা। তিনি করেন ২ রান। নাজমুল ইসলাম অপুর বলে ৭৫ রান করে মুশফিকের হাতে ক্যাচ দিয়ে টেইলর সাজ ঘরে ফিরেন। আউট হবার আগে টেইলর ৭২ বলে ৮ চার ও ৩ ছয় মেরে এই রান করেন। এরপর সিকান্দার রাজাকে নিয়ে এগিয়ে চলেন শন উইলিমস। চতুর্থ উইকেটে দুজন মিলে গড়ে তুলেন ৮৪ রানের পার্টনারশিপ। দুজনের ব্যাটে ৩৮ ওভারে জিম্বাবুয়ের দুইশ স্পর্শ করে জিম্বাবুয়ে। প্রতিরোধ গড়তে থাকা এই জুটিও ভাঙেন অপু্। ৪২তম ওভারের প্রথম বলে অপুর বলে সৌম্যর হাতে ক্যাচ দিয়ে ফিরেন রাজা। সাজঘরে ফেরার আগে ৫১ বলে ১ ছয় ও ২ বলে ২০ রান করেন এই অলরাউন্ডার।

 

পিটার মুরের সঙ্গে জুটি বাঁধেন উইলিয়ামস। রাজা ফেরার পরেই সেঞ্চুরি পূরণ করেছেন তিনি। এটি তার ক্যারিয়ারের দ্বিতীয় সেঞ্চুরি। এরপর আরিফুল হকের সরাসরি থ্রোয়ে রান আউট হয়ে ফিরে যান পিটার মুর। শেষের ৬২ রানের পঞ্চম উইকেট জুটি ভাঙলে চিগাম্বুরার নেমে ১ রান যোগ করেন। উইলিয়ামসের ক্যারিয়ার সেরা ১০ চার ১ ছক্কায় গড়া ইনিংসের উপর ভর করে ইনিংসে শেষে ২৮৬ রানে পুঁজি পায় জিম্বাবুয়ে।  বাংলাদেশের হয়ে বল হাতে ৮ ওভারে ৫৮ রান দিয়ে ২ উইকেট নেন নাজমুল অপু। বাকি একটি করে উইকেট সংগ্রহ করেন আবু হায়দার রনি এবং মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন। বাংলাওয়াশের লক্ষে ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই ধাক্কা খায় বাংলাদেশ। প্রথম বলেই ফিরে যান লিটন দাস। এরপর থেকেই শুরু হয় ইমরুল-সৌম্যের তাণ্ডব। জিম্রবাবুয়ের বোলারদের যেন পাড়ার বোলার বানিয়ে ফেলেছিলেন দুই টাইগার ব্যাটসম্যান ইমরুল কায়েস ও সৌম্য সরকার।

 

সৌম্য সরকার ও ইমরুল কায়েসের সেঞ্চুরির সুবাদে ৪২.১ ওভারে সাত উইকেট হাতে রেখে ম্যাচ জিতে নেয় টাইগাররা। সৌম্য সরকার দলে সুযোগ পেয়েই আজ দুর্দান্ত একটি ইনিংস খেলেছেন। ৯২ বলে ১১৭ রান করে আউট হন তিনি। ওয়ানডে ক্যারিয়ারে এটি তার দ্বিতীয় সেঞ্চুরি। এই রান করার পথে তিনি নয়টি চার মারেন ও ছয়টি ছক্কা হাঁকান। সাড়ে তিন বছরেরও বেশি সময় পর সেঞ্চুরি দেখা পেলেন এই টাইগার ক্রিকেটার। গত দুই ম্যাচে ভালো খেলা ইমরুল কায়েস আজ ১১৫ রান করে আউট হন। ওয়ানডেতে এটি তার চতুর্থ সেঞ্চুরি। এই সিরিজের প্রথম ম্যাচেও ইমরুল কায়েস সেঞ্চুরি করেছিলেন। ওই ম্যাচে ১৪৪ রান করেছিলেন তিনি। এরপর দ্বিতীয় ম্যাচে ৯০ রান করে আউট হন কায়েস।

নিউজটি শেয়ার করুন:

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



Click Here

সর্বশেষ আপডেট



সর্বাধিক পঠিত



About Us | Privacy Policy | Terms & Conditions | Contact Us | Sitemap
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক : মো: আবুল কালাম আজাদ, খোকন
প্রকাশক ও প্রধান সম্পাদক : কামাল হোসেন খান
সম্পাদক : এডভোকেট মো: ফেরদৌস খান
বার্তা সম্পাদক : মো: সো‌হেল অাহ‌ম্মেদ
সহ-সম্পাদক : নুরুজ্জামান কাফি
মফস্বল বিভাগ প্রধান: উত্তম কুমার হাওলাদার
যোগাযোগ: বাড়ী- ৫০৬/এ, রোড- ৩৫,
মহাখালী, ডি ও এইচ এস, ঢাকা- ১২০৬,
ফোন: +৮৮ ০১৭৩১ ৬০০ ১৯৯, ৯৮৯১৮২৫,
বার্তা এবং বিজ্ঞাপন : + ৮৮ ০১৬৭৪ ৬৩২ ৫০৯।
বিজ্ঞাপন এবং নিউজ : + ৮৮ ০১৭১৬ ৮৯২ ৯৭০।
News: editor.kuakatanews@gmail.com

© Copyright BY KuakataNews.Com

Design & Developed BY PopularITLimited