প্রজনন মৌসুম শুরু, বরগুনায় ২২ দিন ইলিশ ধরা বন্ধ

শাহ্ আলী, বরগুনা: ১ অক্টোবর থেকে ২২ অক্টোবর পর্যন্ত ইলিশ শিকার, মজুদ ও বেচাকেনা নিষিদ্ধের সিদ্ধান্তের পর থেকে বরগুনা জেলার বিভিন্ন বাজারে ইলিশের ব্যাপক ছড়াছড়ি লক্ষ্য করা যায়।

 

বিগত সময়ের অবরোধ গুলো কার্যকর হওয়ার কারনে এবছর সমুদ্রে ঝাকে ঝাকে ইলিশের দেখা মিলেছে। ইলিশ প্রজননের জন্য ২৭টি জেলায় ইলিশ ধরার ওপর নিষেধাজ্ঞার সিদ্ধান্ত নেয় সরকার। সিদ্ধান্ত অনুযায়ী চাঁদপুর, লক্ষ্মীপুর, নোয়াখালী, ফেনী, চট্টগ্রাম, কক্সবাজার, বরিশাল, ভোলা, পটুয়াখালী, বরগুনা, পিরোজপুর, ঝালকাঠি, বাগেরহাট, শরীয়তপুর, ব্রাহ্মণবাড়িয়া, ঢাকা, মাদারীপুর, ফরিদপুর, রাজবাড়ী, জামালপুর, নারায়ণগঞ্জ, নরসিংদী, মানিকগঞ্জ, মুন্সীগঞ্জ, খুলনা, কুষ্টিয়া ও রাজশাহী জেলার নদনদী। সেই সঙ্গে দেশের সমুদ্র উপকূল এবং মোহনায়ও ওই ২২ দিন ইলিশ ধরা বন্ধ থাকবে। এদিকে ইলিশ আহরণ, বিক্রি ও মজুদ নিষিদ্ধ করায় নদী ও সাগর থেকে মাছ ধরার সব ট্রলার প্রচুর ইলিশ নিয়ে উপকূলের মৎস্য আড়ত গুলোতে ফিরে আসায় বরগুনার হাট-বাজারে ইলিশ মাছ বিক্রি হচ্ছে পানির দামে।

 

জেলা মৎস্য বিভাগ সূত্রে জানা যায়, জাতীয় মাছ ইলিশের প্রধান প্রজনন মৌসুম হওয়ায় দেশের উপকূলীয় বেশ কয়েকটি উপজেলার নদী অঞ্চলের প্রধান প্রজনন পয়েন্টগুলোতে ওই ২২ দিন সব ধরনের মাছধরা নিষিদ্ধ করা হয়েছে। একই সঙ্গে ইলিশ আহরণ, পরিবহন, বাজারজাত করণ, বিক্রয় ও মজুত নিষিদ্ধ করা হয়। সরকারি এ আদেশ অমান্য করলে দন্ডনীয় অপরাধ হিসেবে অভিযুক্তদের এক মাস থেকে সর্বোচ্চ ২ বছর কারাদন্ড ও জরিমানা গুনতে হবে। ইতি মধ্যে এ পরিকল্পনা বাস্তবায়নে জেলা প্রশাসক মোঃ মোখলেছুর রহমান এর সভাপতিত্বে প্রশাসকের কার্যালয়ে সভা অনুষ্ঠিত হয়। গত বছর এ অভিযান সফল হওয়ায় গত ১০ বছরের রেকর্ড ছাড়িয়ে এবার টানা এক মাস ঝাঁকে ঝাঁকে ইলিশ উপকূলীয় অঞ্চলের নদীর জেলেদের জালে ধরা পড়ে। বরগুনা জেলা মৎস্য কর্মকর্তা ড. মোঃ ওয়াহিদুজ্জামান জানান, সরকারের এ পরিকল্পনা বাস্তবায়নে বরগুনারা নদী, মাছ বাজার ও আড়ত গুলোতে ২৪ ঘণ্টা অভিযান অব্যাহত থাকবে। জনসচেতনতা সৃষ্টির লক্ষ্যে নদী উপকূলীয় এলাকায় মাইকিং, ব্যানার, লিফলেট বিতরণ ও অবহিতকরণ সভা করা হয়েছে।

 

তিনি আরও বলেন, মা ইলিশ রক্ষায় র‌্যাব, পুলিশ, কোস্টগার্ড, নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটসহ মৎস্য বিভাগের সঙ্গে সম্পৃক্তরা সর্বদা অভিযান অব্যহত রাখা হবে। এছাড়াও ২২ দিন মাছ ধরা বন্ধ থাকাকালীন তালিকাভুক্ত জেলে ভিজিএফ হিসেবে ২০ কেজি করে চাল বিনামূল্যে পাবেন। বরাদ্দের ওই চাল আসলেই খুব শিগ্রই জেলেদের মাঝে বিতরণ শুরু হবে বলে জানান মৎস্য কর্মকর্তা।

সংবাদটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে শেয়ার করুন

সর্বশেষ আপডেট



» গলাচিপায় মেয়র কাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের ফাইনাল খেলা অনুষ্ঠিত

» আন্তর্জাতিক মানবাধিকার দিবস উপলক্ষে- জাতীয় মানবাধিকার আন্দোলনের র‌্যালী ও সংক্ষিপ্ত সমাবেশ মানবাধিকারের মূলনীতি বাংলাদেশ সংবিধানে আছে, বাস্তবে কিছুই নেই – মুহাম্মদ মাহমুদুল হাসান

» আত্রাইয়ে বেগম রোকেয়া দিবস পালিত

» সমুদ্রের মঝে নয়নাভিরাম অপরূপ সৌন্দর্যের হাতছানি।। পাখির কোলাহল আর লাল কাকড়ার লুকোচুরিতে মুখরিত চর বিজয়

» বেনাপোলে শত্রুতা জেরে চাষির ক্ষেতের ফসল আগুনে পুড়ালো দূর্বত্তরা

» বেনাপোল পোর্ট থানা পুলিশের অভিযানে ফেনসিডিলসহ গ্রেপ্তার-১

» কলাপাড়ায় রোকেয়া দিবস উদযাপন।। পাঁচ জয়ীতাকে সম্মাননা ক্রেস্ট প্রদান

» কলাপাড়ায় দুর্নীতি বিরোধী দিবস পালন

» মৌলভীবাজারে আন্তর্জাতিক দুর্ণীতি বিরোধী দিবস- ২০১৯ পালিত

» সবুজ সংকেত পেলেই তবে দিবারাত্রির টেস্ট নিয়ে সিদ্ধান্ত

লাইক দিয়ে সংযুক্ত থাকুন

ব্যবস্থাপনা সম্পাদক : মো: আবুল কালাম আজাদ, খোকন
প্রকাশক ও প্রধান সম্পাদক : কামাল হোসেন খান
সম্পাদক : এডভোকেট মো: ফেরদৌস খান
বার্তা সম্পাদক : মো: সো‌হেল অাহ‌ম্মেদ
সহ-সম্পাদক : নুরুজ্জামান কাফি
মফস্বল বিভাগ প্রধান: উত্তম কুমার হাওলাদার
যোগাযোগ: বাড়ী- ৫০৬/এ, রোড- ৩৫,
মহাখালী, ডি ও এইচ এস, ঢাকা- ১২০৬,
ফোন: +৮৮ ০১৭৩১ ৬০০ ১৯৯, ৯৮৯১৮২৫,
বার্তা এবং বিজ্ঞাপন : + ৮৮ ০১৬৭৪ ৬৩২ ৫০৯।
বিজ্ঞাপন এবং নিউজ : + ৮৮ ০১৭১৬ ৮৯২ ৯৭০।
News: editor.kuakatanews@gmail.com
Desing & Developed BY PopularITLtd.Com
আজ বুধবার, ১১ ডিসেম্বর ২০১৯ খ্রিষ্টাব্দ, ২৬শে অগ্রহায়ণ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

প্রজনন মৌসুম শুরু, বরগুনায় ২২ দিন ইলিশ ধরা বন্ধ

ইউটিউবে সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

শাহ্ আলী, বরগুনা: ১ অক্টোবর থেকে ২২ অক্টোবর পর্যন্ত ইলিশ শিকার, মজুদ ও বেচাকেনা নিষিদ্ধের সিদ্ধান্তের পর থেকে বরগুনা জেলার বিভিন্ন বাজারে ইলিশের ব্যাপক ছড়াছড়ি লক্ষ্য করা যায়।

 

বিগত সময়ের অবরোধ গুলো কার্যকর হওয়ার কারনে এবছর সমুদ্রে ঝাকে ঝাকে ইলিশের দেখা মিলেছে। ইলিশ প্রজননের জন্য ২৭টি জেলায় ইলিশ ধরার ওপর নিষেধাজ্ঞার সিদ্ধান্ত নেয় সরকার। সিদ্ধান্ত অনুযায়ী চাঁদপুর, লক্ষ্মীপুর, নোয়াখালী, ফেনী, চট্টগ্রাম, কক্সবাজার, বরিশাল, ভোলা, পটুয়াখালী, বরগুনা, পিরোজপুর, ঝালকাঠি, বাগেরহাট, শরীয়তপুর, ব্রাহ্মণবাড়িয়া, ঢাকা, মাদারীপুর, ফরিদপুর, রাজবাড়ী, জামালপুর, নারায়ণগঞ্জ, নরসিংদী, মানিকগঞ্জ, মুন্সীগঞ্জ, খুলনা, কুষ্টিয়া ও রাজশাহী জেলার নদনদী। সেই সঙ্গে দেশের সমুদ্র উপকূল এবং মোহনায়ও ওই ২২ দিন ইলিশ ধরা বন্ধ থাকবে। এদিকে ইলিশ আহরণ, বিক্রি ও মজুদ নিষিদ্ধ করায় নদী ও সাগর থেকে মাছ ধরার সব ট্রলার প্রচুর ইলিশ নিয়ে উপকূলের মৎস্য আড়ত গুলোতে ফিরে আসায় বরগুনার হাট-বাজারে ইলিশ মাছ বিক্রি হচ্ছে পানির দামে।

 

জেলা মৎস্য বিভাগ সূত্রে জানা যায়, জাতীয় মাছ ইলিশের প্রধান প্রজনন মৌসুম হওয়ায় দেশের উপকূলীয় বেশ কয়েকটি উপজেলার নদী অঞ্চলের প্রধান প্রজনন পয়েন্টগুলোতে ওই ২২ দিন সব ধরনের মাছধরা নিষিদ্ধ করা হয়েছে। একই সঙ্গে ইলিশ আহরণ, পরিবহন, বাজারজাত করণ, বিক্রয় ও মজুত নিষিদ্ধ করা হয়। সরকারি এ আদেশ অমান্য করলে দন্ডনীয় অপরাধ হিসেবে অভিযুক্তদের এক মাস থেকে সর্বোচ্চ ২ বছর কারাদন্ড ও জরিমানা গুনতে হবে। ইতি মধ্যে এ পরিকল্পনা বাস্তবায়নে জেলা প্রশাসক মোঃ মোখলেছুর রহমান এর সভাপতিত্বে প্রশাসকের কার্যালয়ে সভা অনুষ্ঠিত হয়। গত বছর এ অভিযান সফল হওয়ায় গত ১০ বছরের রেকর্ড ছাড়িয়ে এবার টানা এক মাস ঝাঁকে ঝাঁকে ইলিশ উপকূলীয় অঞ্চলের নদীর জেলেদের জালে ধরা পড়ে। বরগুনা জেলা মৎস্য কর্মকর্তা ড. মোঃ ওয়াহিদুজ্জামান জানান, সরকারের এ পরিকল্পনা বাস্তবায়নে বরগুনারা নদী, মাছ বাজার ও আড়ত গুলোতে ২৪ ঘণ্টা অভিযান অব্যাহত থাকবে। জনসচেতনতা সৃষ্টির লক্ষ্যে নদী উপকূলীয় এলাকায় মাইকিং, ব্যানার, লিফলেট বিতরণ ও অবহিতকরণ সভা করা হয়েছে।

 

তিনি আরও বলেন, মা ইলিশ রক্ষায় র‌্যাব, পুলিশ, কোস্টগার্ড, নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটসহ মৎস্য বিভাগের সঙ্গে সম্পৃক্তরা সর্বদা অভিযান অব্যহত রাখা হবে। এছাড়াও ২২ দিন মাছ ধরা বন্ধ থাকাকালীন তালিকাভুক্ত জেলে ভিজিএফ হিসেবে ২০ কেজি করে চাল বিনামূল্যে পাবেন। বরাদ্দের ওই চাল আসলেই খুব শিগ্রই জেলেদের মাঝে বিতরণ শুরু হবে বলে জানান মৎস্য কর্মকর্তা।

সংবাদটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে শেয়ার করুন

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



Click Here

সর্বশেষ আপডেট



সর্বাধিক পঠিত



About Us | Privacy Policy | Terms & Conditions | Contact Us | Sitemap
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক : মো: আবুল কালাম আজাদ, খোকন
প্রকাশক ও প্রধান সম্পাদক : কামাল হোসেন খান
সম্পাদক : এডভোকেট মো: ফেরদৌস খান
বার্তা সম্পাদক : মো: সো‌হেল অাহ‌ম্মেদ
সহ-সম্পাদক : নুরুজ্জামান কাফি
মফস্বল বিভাগ প্রধান: উত্তম কুমার হাওলাদার
যোগাযোগ: বাড়ী- ৫০৬/এ, রোড- ৩৫,
মহাখালী, ডি ও এইচ এস, ঢাকা- ১২০৬,
ফোন: +৮৮ ০১৭৩১ ৬০০ ১৯৯, ৯৮৯১৮২৫,
বার্তা এবং বিজ্ঞাপন : + ৮৮ ০১৬৭৪ ৬৩২ ৫০৯।
বিজ্ঞাপন এবং নিউজ : + ৮৮ ০১৭১৬ ৮৯২ ৯৭০।
News: editor.kuakatanews@gmail.com

© Copyright BY KuakataNews.Com

Design & Developed BY PopularITLimited