ফতুল্লায় স্ত্রীকে হত্যার পর স্বামীর আত্মসমর্পণ

সাদ্দাম হোসেন শুভ:- নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার ফতুল্লা থানাধীন পঞ্চবটী চাদঁনী হাউজিং এলাকায় তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে আফরিন আক্তার রানী (২৩) নামে এক গৃহবধূকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করেছে তার স্বামী। স্ত্রীকে হত্যার পর স্বামী মেহেদী হাসান (৩০) নিজেই থানায় গিয়ে আত্মসমর্পণ করেছেন। গতকাল বৃহস্পতিবার (৪’ই অক্টোবর) দিবাগত রাত ৫ ঘটিকায় ঘটনাটি ঘটেছে চাদঁনী হাউজিং এর ওমর ফারুকের বাড়ীর ২য় তলায়। ঘটনাস্থল থেকে শুক্রবার দুপুরে নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে ফতুল্লা থানা পুলিশ।

 

নিহত আফরিন আক্তার রানী নাটোরের বাগাতিপাড়া উপজেলার সরদীয়া এলাকার আব্দুর রহিমের মেয়ে এবং ফতুল্লার চাঁদনী হাউজিং এলাকার ওমর ফারুকের বাড়ির ২য় তলার ভাড়াটিয়া মেহেদী হাসানের স্ত্রী। খোজ নিয়ে জানা যায় ফতুল্লা থানার শিল্প নগরী বিসিক এলাকার নিজাম উদ্দিনের ছেলে মেহদী হাসান। পরিবারের দুই ভাই ও তিন বোনের মধ্যে মেহদী হাসান দ্বিতীয় সন্তান। গত ৮ বছর পূর্বে চাদঁপুর জেলার মতলব থানার কালীপুর মল্লিকচর এলাকায় পারিবারিক ভাবে প্রথম বিয়ে করেন মেহদী হাসান। তার প্রথম সংসারে মেহেরীন হাসান (৭) নামে একটি কন্না সন্তান রয়েছে বলে জানা যায় । ইতিপূর্বে মেহেদী হাসান মুসলিম নগর নয়াবাজার এলাকায় টেলিকম ব্যবসা করার সময় পরিচয় হয় সেখানকার পার্লার কর্মরত আফরিন আক্তার রানীর সাথে একপর্যায়ে তাকে নিয়ে গত দুই বছর আগে চম্পট দিয়ে চলে যায় গাজীপুরে। আরো জানা যায় যে আব্দুর রহিম এর মেয়ে আফরিন আক্তার রানী তার মেহদী হাসানের সাথে বিয়ের পূর্বে আরেকটি বিয়ে হয়েছিল। তার সেই সংসারে একটি মেয়ে এবং তার স্বামীও রয়েছে বলে জানা যায়।

 

ধৃত মেহেদী হাসান বর্তমানে নবীনগরে একটি হুশিয়ারীতে ম্যানেজার হিসেবে কর্মরত রয়েছেন। তার সংসারে একটি ৫ মাসের ফুটফুটে ছেলে রয়েছেন। মেহেদী হাসানের মা জুসনা বেগম আমাদের জানান তার ছেলের সংসারে প্রতিনিয়ত ঝগড়া হয়ে আসছে। গত বৃহস্পতিবার রাত ১২ টায় বাসায় আসেন তার ছেলে হঠাৎ শুনতে পারি মোবাইল সার্ভিসিং করা নিয়ে ঝগড়া করে সবাই ঘুমিয়ে পরার একপর্যায়ে সকাল ৬ টায় আমার ছেলে ডেকে উঠিয়ে বলে এই ঘটনা তারপর আমি নিজে আমার ছেলেকে আত্মসমর্পণ করার জন্য থানায় নিয়ে আসেছি বলে তিনি জানান। এই বিষয়ে ফতুল্লা মডেল থানা পুলিশের উপ-পরিদর্শক (এসআই) মামুন আল আবেদ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, গত দুই বছর আগে আফরিন আক্তার রানীকে পরকীয়া সম্পর্ক থেকে বিয়ে করেন মেহেদী হাসান। বিয়ের পর তারা ফতুল্লার চাঁদনী হাউজিং এলাকার ওমর ফারুকের বাড়ির ২য় তলার ভাড়া বাড়িতে বসবাস করে আসছিল। তাদের সংসারে পাঁচ মাসের একটি ছেলে সন্তান রয়েছে। বৃহস্পতিবার রাতে মোবাইলে চার্জ দেয়া নিয়ে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে ঝগড়ার একপর্যায়ে মেহেদী তার স্ত্রী রানীকে গলায় গামছা পেঁচিয়ে শ্বাসরোধ করে হত্যা করেন। হত্যার পর মেহেদী সারারাত বাসাতেই ছিলেন। শুক্রবার দুপুরে পাঁচ মাসের শিশু সন্তানকে বাসায় রেখে ফতুল্লা থানায় আত্মসমর্পণ করেন তিনি। এসআই মামুন আল আবেদ আরও জানান, মেহেদী হাসানের আগের সংসারে স্ত্রী-সন্তান রয়েছে এবং আফরিন আক্তার রানীরও স্বামী-সন্তান রয়েছে। তারা উভয়ই আগের সংসার রেখে পরকীয়া সম্পর্ক বিয়ে করে আলাদা সংসার শুরু করে। তাদের সংসার জীবনে আগের সংসার নিয়ে প্রায়ই ঝগড়া হতো বলে জানা গেছে।

নিউজটি শেয়ার করুন:
image_print

সর্বশেষ আপডেট



» সৌদি আরব সফর শেষে দেশে ফিরেছেন প্রধানমন্ত্রী

» ফতুল্লায় মহানগরের আমিরসহ নয় জামায়াতকর্মী গ্রেপ্তার

» কুয়াকাটা নিউজ ও ইয়াদ পত্রিকার ষ্টাফ রিপোর্টার মুন্নি আলম মনি‘র ছেলে সৌরভের অষ্টম জন্মবার্ষিকী

» মুক্তি পেয়েছে হুমায়ূন আহমেদের জনপ্রিয় উপন্যাস ‘দেবী’ ও ‘নায়ক’

» মাদারীপুরে পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় পুলিশ কর্মকর্তাসহ ২ জনের মৃত্যু

» প্রতিমা বিসর্জনের মধ্যদিয়ে শেষ হলো দুর্গাপূজা

» রাজবাড়ীতে ট্রেনের ধাক্কায় নিহত ৪

» ভারতের পাঞ্জাব প্রদেশে ট্রেন দুর্ঘটনায় নিহত অন্তত ৫০

» আশ্রয় নেয়া বিক্রি হচ্ছে রোহিঙ্গা মেয়েরা: জাতিসংঘ

» মিয়ানমারের রোহিঙ্গা আশ্রয়কেন্দ্রে আগুন, নিহত ৬

লাইক দিয়ে সংযুক্ত থাকুন

ব্যবস্থাপনা সম্পাদক : মো: আবুল কালাম আজাদ, খোকন
প্রকাশক ও প্রধান সম্পাদক : কামাল হোসেন খান
সম্পাদক : এডভোকেট মো: ফেরদৌস খান
বার্তা সম্পাদক : মো: সো‌হেল অাহ‌ম্মেদ
মফস্বল বিভাগ প্রধান: উত্তম কুমার হাওলাদার
Email: info@kuakatanews.com
যোগাযোগ: বাড়ী- ৫০৬/এ, রোড- ৩৫,
মহাখালী, ডি ও এইচ এস, ঢাকা- ১২০৬,
ফোন: +৮৮ ০১৭৩১ ৬০০ ১৯৯, ৯৮৯১৮২৫,
বার্তা এবং বিজ্ঞাপন : + ৮৮ ০১৬৭৪ ৬৩২ ৫০৯।
বিজ্ঞাপন এবং নিউজ : + ৮৮ ০১৭১৬ ৮৯২ ৯৭০।
News: editor.kuakatanews@gmail.com
Desing & Developed BY PopularITLtd.Com
আজ শনিবার, ২০ অক্টোবর ২০১৮ খ্রিষ্টাব্দ, ৫ই কার্তিক ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

ফতুল্লায় স্ত্রীকে হত্যার পর স্বামীর আত্মসমর্পণ

ইউটিউবে সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

সাদ্দাম হোসেন শুভ:- নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার ফতুল্লা থানাধীন পঞ্চবটী চাদঁনী হাউজিং এলাকায় তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে আফরিন আক্তার রানী (২৩) নামে এক গৃহবধূকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করেছে তার স্বামী। স্ত্রীকে হত্যার পর স্বামী মেহেদী হাসান (৩০) নিজেই থানায় গিয়ে আত্মসমর্পণ করেছেন। গতকাল বৃহস্পতিবার (৪’ই অক্টোবর) দিবাগত রাত ৫ ঘটিকায় ঘটনাটি ঘটেছে চাদঁনী হাউজিং এর ওমর ফারুকের বাড়ীর ২য় তলায়। ঘটনাস্থল থেকে শুক্রবার দুপুরে নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে ফতুল্লা থানা পুলিশ।

 

নিহত আফরিন আক্তার রানী নাটোরের বাগাতিপাড়া উপজেলার সরদীয়া এলাকার আব্দুর রহিমের মেয়ে এবং ফতুল্লার চাঁদনী হাউজিং এলাকার ওমর ফারুকের বাড়ির ২য় তলার ভাড়াটিয়া মেহেদী হাসানের স্ত্রী। খোজ নিয়ে জানা যায় ফতুল্লা থানার শিল্প নগরী বিসিক এলাকার নিজাম উদ্দিনের ছেলে মেহদী হাসান। পরিবারের দুই ভাই ও তিন বোনের মধ্যে মেহদী হাসান দ্বিতীয় সন্তান। গত ৮ বছর পূর্বে চাদঁপুর জেলার মতলব থানার কালীপুর মল্লিকচর এলাকায় পারিবারিক ভাবে প্রথম বিয়ে করেন মেহদী হাসান। তার প্রথম সংসারে মেহেরীন হাসান (৭) নামে একটি কন্না সন্তান রয়েছে বলে জানা যায় । ইতিপূর্বে মেহেদী হাসান মুসলিম নগর নয়াবাজার এলাকায় টেলিকম ব্যবসা করার সময় পরিচয় হয় সেখানকার পার্লার কর্মরত আফরিন আক্তার রানীর সাথে একপর্যায়ে তাকে নিয়ে গত দুই বছর আগে চম্পট দিয়ে চলে যায় গাজীপুরে। আরো জানা যায় যে আব্দুর রহিম এর মেয়ে আফরিন আক্তার রানী তার মেহদী হাসানের সাথে বিয়ের পূর্বে আরেকটি বিয়ে হয়েছিল। তার সেই সংসারে একটি মেয়ে এবং তার স্বামীও রয়েছে বলে জানা যায়।

 

ধৃত মেহেদী হাসান বর্তমানে নবীনগরে একটি হুশিয়ারীতে ম্যানেজার হিসেবে কর্মরত রয়েছেন। তার সংসারে একটি ৫ মাসের ফুটফুটে ছেলে রয়েছেন। মেহেদী হাসানের মা জুসনা বেগম আমাদের জানান তার ছেলের সংসারে প্রতিনিয়ত ঝগড়া হয়ে আসছে। গত বৃহস্পতিবার রাত ১২ টায় বাসায় আসেন তার ছেলে হঠাৎ শুনতে পারি মোবাইল সার্ভিসিং করা নিয়ে ঝগড়া করে সবাই ঘুমিয়ে পরার একপর্যায়ে সকাল ৬ টায় আমার ছেলে ডেকে উঠিয়ে বলে এই ঘটনা তারপর আমি নিজে আমার ছেলেকে আত্মসমর্পণ করার জন্য থানায় নিয়ে আসেছি বলে তিনি জানান। এই বিষয়ে ফতুল্লা মডেল থানা পুলিশের উপ-পরিদর্শক (এসআই) মামুন আল আবেদ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, গত দুই বছর আগে আফরিন আক্তার রানীকে পরকীয়া সম্পর্ক থেকে বিয়ে করেন মেহেদী হাসান। বিয়ের পর তারা ফতুল্লার চাঁদনী হাউজিং এলাকার ওমর ফারুকের বাড়ির ২য় তলার ভাড়া বাড়িতে বসবাস করে আসছিল। তাদের সংসারে পাঁচ মাসের একটি ছেলে সন্তান রয়েছে। বৃহস্পতিবার রাতে মোবাইলে চার্জ দেয়া নিয়ে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে ঝগড়ার একপর্যায়ে মেহেদী তার স্ত্রী রানীকে গলায় গামছা পেঁচিয়ে শ্বাসরোধ করে হত্যা করেন। হত্যার পর মেহেদী সারারাত বাসাতেই ছিলেন। শুক্রবার দুপুরে পাঁচ মাসের শিশু সন্তানকে বাসায় রেখে ফতুল্লা থানায় আত্মসমর্পণ করেন তিনি। এসআই মামুন আল আবেদ আরও জানান, মেহেদী হাসানের আগের সংসারে স্ত্রী-সন্তান রয়েছে এবং আফরিন আক্তার রানীরও স্বামী-সন্তান রয়েছে। তারা উভয়ই আগের সংসার রেখে পরকীয়া সম্পর্ক বিয়ে করে আলাদা সংসার শুরু করে। তাদের সংসার জীবনে আগের সংসার নিয়ে প্রায়ই ঝগড়া হতো বলে জানা গেছে।

নিউজটি শেয়ার করুন:
image_print

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



সর্বাধিক পঠিত



ব্যবস্থাপনা সম্পাদক : মো: আবুল কালাম আজাদ, খোকন
প্রকাশক ও প্রধান সম্পাদক : কামাল হোসেন খান
সম্পাদক : এডভোকেট মো: ফেরদৌস খান
বার্তা সম্পাদক : মো: সো‌হেল অাহ‌ম্মেদ
মফস্বল বিভাগ প্রধান: উত্তম কুমার হাওলাদার
Email: info@kuakatanews.com
যোগাযোগ: বাড়ী- ৫০৬/এ, রোড- ৩৫,
মহাখালী, ডি ও এইচ এস, ঢাকা- ১২০৬,
ফোন: +৮৮ ০১৭৩১ ৬০০ ১৯৯, ৯৮৯১৮২৫,
বার্তা এবং বিজ্ঞাপন : + ৮৮ ০১৬৭৪ ৬৩২ ৫০৯।
বিজ্ঞাপন এবং নিউজ : + ৮৮ ০১৭১৬ ৮৯২ ৯৭০।
News: editor.kuakatanews@gmail.com

© Copyright BY KuakataNews.Com

Design & Developed BY PopularITLimited