ঝিনাইদহে ঝড় ও শিলাবৃষ্টির কারণে মাঠ জুড়ে মহাদুর্ভোগের চিহ্ন চরম দুর্ভোগে কৃষকের মনে ক্ষতের সৃষ্টি!

ঝিনাইদহ  সংবাদাতা: ঝিনাইদহের কৃষকরা বৈশাখ মাস জুড়েই ঝড় ও শিলাবৃষ্টির কারণে চরম দুর্ভোগে পড়েছে। তাইতো পাকা সড়ক আর বিস্তির্ণ মাঠ জুড়ে এখন চোখে পড়ছে মহাদুর্ভোগের চিহ্ন। ক্ষেতের জমিতে পানির উপর ভাসছে পাকা ধানের আঁটি। ভেজা ধান তুলে এনে কৃষকরা পাকা রাস্তার উপর মড়াই ও শুকিয়ে ঘরে তুলছে।

 

এই দুর্ভোগ কৃষকের মনে ক্ষতের সৃষ্টি করেছে। ঝিনাইদহের সিমান্ত এলাকার জীবনা গ্রামের আতিয়ার রহমানের ছেলে মিলন মিয়া জানান, পানির নিচে থাকার কারনে ধানের রং খারাপ হয়ে গেছে। এ জন্য বাজারে দাম পাচ্ছে না। তাছাড়া শহর এলাকায় এক বিঘা ধান কাটতে লাগছে ৬ হাজার টাকা। আর গ্রামে ৩৫’শ টাকা। তাও জোন (কামলা) পাওয়া যাচ্ছে না। ঝিনাইদহ সদরের আসাননগর গ্রামের কৃষক সুবল কুমার জানান, এবার কৃষকরা বিচুলি বিক্রি বাবদ কোন অর্থ ঘরে তুলতে পারবে না। বৃষ্টির কারণে বিচুলি করা যায় নি। তাই বিঘা প্রতি কৃষকের লোকসান যাবে প্রায় ৬ হাজার টাকা।

বাজারে ধানের দাম ইতিমধ্যে পড়ে গেছে। এক হাজার টাকা মন ধান এখন বিক্রি হচ্ছে ৯৬০ টাকা। এ ছাড়া অন্যান্য জাতের ধানের দাম সাড়ে ৭’শ টাকা বিক্রি হচ্ছে। তবে ব্যবসায়ীদের ধারণা এক সপ্তার ব্যবধানে ধানের দাম বৃদ্ধি হতে পারে। বিষয়টি নিয়ে ঝিনাইদহ সদর উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা ড. মনিরুজ্জামান জানান, এবার ঝিনাইদহ সদরে ২৩ হাজার ৬’শ ৫০ হেক্টর জমিতে ধান চাষ হয়েছে। মাঠে ফলনও ভাল। তবে এই আবহাওয়ায় তেমন কোন ক্ষতি হওয়ার কথা না।

 

ঝিনাইদহ কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক জি এম আব্দুর রউফ জানান, কিছু এলাকায় কৃষকদের বৃষ্টিতে সমস্যা করেছে। তবে এটা হতো না, কৃষকরা বিচুলির জন্য সময় ক্ষেপন করার কারণে দুর্যোগে পড়েছে। তিনি বলেন আমরা পরিসংখ্যানবিদদের সাথে ক্ষতির পরিমান নিরুপন করবো। তিনি বলেন, এবার সারা জেলায় ৯৩ হাজার হেক্টর জমিতে ধান চাষ হয়েছে। বেশির ভাগ এলাকায় কৃষকরা নির্বিঘেœ ধান ঘরে তুলতে পেরেছে।

নিউজটি শেয়ার করুন:

সর্বশেষ আপডেট



» পটুয়াখালীর গলাচিপায় আ’মী পরিবারের শোক মিছিলে ছাত্রলীগের হামলা ভিডিও

» আফগানিস্তানের কাবুলে আত্মঘাতী বিস্ফোরণে নিহত বেড়ে ৪৮

» ফতুল্লায় বঙ্গবন্ধুর ৪৩তম শাহাদাৎ বাষির্কীতে শ্রমিকলীগের উদ্যোগে দোয়া মাহফিল ও নেওয়াজ বিতরন

» বই সামনে নিয়ে হোমিওপ্যাথিক পরীক্ষা প্রদানের সংবাদে তোলপাড়: তদন্ত কমিটি গঠন

» সীমান্ত প্রেসক্লাব বেনাপোলের নানা কর্মসূচির মধ্যে দিয়ে পালিত হলো ১৫ আগস্ট

» যশোরের শার্শা ও বেনাপোলে যথাযোগ্য মর্যাদায় ১৫ ইং আগস্ট জাতীয় শোক দিবস পালিত

» ঝিনাইদহ জেলা রিপেটার্স ইউনিটি ও এনপিএস’র জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে মটরসাইকেল র‌্যালি

» হরিণাকুন্ডুতে চাঁদাবাজী করতে গিয়ে দুই ভুয়া সাংবাদিক গ্রেফতার

» ঝালকাঠিতে যথাযোগ্য মর্যাদায় জাতীয় শোক দিবস পালিত

» দশমিনায় মনোনয়ন প্রত্যাশীর পক্ষে দফায় দফায় শোক র‌্যালী

লাইক দিয়ে সংযুক্ত থাকুন




ব্যবস্থাপনা সম্পাদক : মো: আবুল কালাম আজাদ, খোকন
প্রকাশক ও প্রধান সম্পাদক : কামাল হোসেন খান
সম্পাদক : এডভোকেট মো: ফেরদৌস খান
বার্তা সম্পাদক : মো: সো‌হেল অাহ‌ম্মেদ
মফস্বল বিভাগ প্রধান: উত্তম কুমার হাওলাদার
Email: info@kuakatanews.com
যোগাযোগ: বাড়ী- ৫০৬/এ, রোড- ৩৫,
মহাখালী, ডি ও এইচ এস, ঢাকা- ১২০৬,
ফোন: +৮৮ ০১৭৩১ ৬০০ ১৯৯, ৯৮৯১৮২৫,
বার্তা এবং বিজ্ঞাপন : + ৮৮ ০১৬৭৪ ৬৩২ ৫০৯।
বিজ্ঞাপন এবং নিউজ : + ৮৮ ০১৭১৬ ৮৯২ ৯৭০।
News: editor.kuakatanews@gmail.com
Desing & Developed BY PopularITLtd.Com
,

ঝিনাইদহে ঝড় ও শিলাবৃষ্টির কারণে মাঠ জুড়ে মহাদুর্ভোগের চিহ্ন চরম দুর্ভোগে কৃষকের মনে ক্ষতের সৃষ্টি!

ঝিনাইদহ  সংবাদাতা: ঝিনাইদহের কৃষকরা বৈশাখ মাস জুড়েই ঝড় ও শিলাবৃষ্টির কারণে চরম দুর্ভোগে পড়েছে। তাইতো পাকা সড়ক আর বিস্তির্ণ মাঠ জুড়ে এখন চোখে পড়ছে মহাদুর্ভোগের চিহ্ন। ক্ষেতের জমিতে পানির উপর ভাসছে পাকা ধানের আঁটি। ভেজা ধান তুলে এনে কৃষকরা পাকা রাস্তার উপর মড়াই ও শুকিয়ে ঘরে তুলছে।

 

এই দুর্ভোগ কৃষকের মনে ক্ষতের সৃষ্টি করেছে। ঝিনাইদহের সিমান্ত এলাকার জীবনা গ্রামের আতিয়ার রহমানের ছেলে মিলন মিয়া জানান, পানির নিচে থাকার কারনে ধানের রং খারাপ হয়ে গেছে। এ জন্য বাজারে দাম পাচ্ছে না। তাছাড়া শহর এলাকায় এক বিঘা ধান কাটতে লাগছে ৬ হাজার টাকা। আর গ্রামে ৩৫’শ টাকা। তাও জোন (কামলা) পাওয়া যাচ্ছে না। ঝিনাইদহ সদরের আসাননগর গ্রামের কৃষক সুবল কুমার জানান, এবার কৃষকরা বিচুলি বিক্রি বাবদ কোন অর্থ ঘরে তুলতে পারবে না। বৃষ্টির কারণে বিচুলি করা যায় নি। তাই বিঘা প্রতি কৃষকের লোকসান যাবে প্রায় ৬ হাজার টাকা।

বাজারে ধানের দাম ইতিমধ্যে পড়ে গেছে। এক হাজার টাকা মন ধান এখন বিক্রি হচ্ছে ৯৬০ টাকা। এ ছাড়া অন্যান্য জাতের ধানের দাম সাড়ে ৭’শ টাকা বিক্রি হচ্ছে। তবে ব্যবসায়ীদের ধারণা এক সপ্তার ব্যবধানে ধানের দাম বৃদ্ধি হতে পারে। বিষয়টি নিয়ে ঝিনাইদহ সদর উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা ড. মনিরুজ্জামান জানান, এবার ঝিনাইদহ সদরে ২৩ হাজার ৬’শ ৫০ হেক্টর জমিতে ধান চাষ হয়েছে। মাঠে ফলনও ভাল। তবে এই আবহাওয়ায় তেমন কোন ক্ষতি হওয়ার কথা না।

 

ঝিনাইদহ কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক জি এম আব্দুর রউফ জানান, কিছু এলাকায় কৃষকদের বৃষ্টিতে সমস্যা করেছে। তবে এটা হতো না, কৃষকরা বিচুলির জন্য সময় ক্ষেপন করার কারণে দুর্যোগে পড়েছে। তিনি বলেন আমরা পরিসংখ্যানবিদদের সাথে ক্ষতির পরিমান নিরুপন করবো। তিনি বলেন, এবার সারা জেলায় ৯৩ হাজার হেক্টর জমিতে ধান চাষ হয়েছে। বেশির ভাগ এলাকায় কৃষকরা নির্বিঘেœ ধান ঘরে তুলতে পেরেছে।

নিউজটি শেয়ার করুন:

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



সর্বাধিক পঠিত



ব্যবস্থাপনা সম্পাদক : মো: আবুল কালাম আজাদ, খোকন
প্রকাশক ও প্রধান সম্পাদক : কামাল হোসেন খান
সম্পাদক : এডভোকেট মো: ফেরদৌস খান
বার্তা সম্পাদক : মো: সো‌হেল অাহ‌ম্মেদ
মফস্বল বিভাগ প্রধান: উত্তম কুমার হাওলাদার
Email: info@kuakatanews.com
যোগাযোগ: বাড়ী- ৫০৬/এ, রোড- ৩৫,
মহাখালী, ডি ও এইচ এস, ঢাকা- ১২০৬,
ফোন: +৮৮ ০১৭৩১ ৬০০ ১৯৯, ৯৮৯১৮২৫,
বার্তা এবং বিজ্ঞাপন : + ৮৮ ০১৬৭৪ ৬৩২ ৫০৯।
বিজ্ঞাপন এবং নিউজ : + ৮৮ ০১৭১৬ ৮৯২ ৯৭০।
News: editor.kuakatanews@gmail.com

© Copyright BY KuakataNews.Com

Design & Developed BY PopularITLimited