ডিসি এসপি আপনাদেরকে সালাম, দয়া করে নারায়ণগঞ্জ থেকে চলে যান- অড. মাসুম

বিশেষ প্রতিবেদক:- ডিসি এসপিকে উদ্দেশ্য করে প্রেস ক্লাব সভাপতি এড. মাহবুবুর রহমান মাসুম বলেছেন, আপনারা যদি সন্ত্রাসমুক্ত নারায়ণগঞ্জ উপহার দিতে না পারেন, আইনশৃঙ্খলা বাহিনী যদি ব্যর্থ হয়, ডিসি এসপি আপনাদেরকে সালাম, দয়া করে আপনারা নারায়ণগঞ্জ থেকে চলে যান।

 

শনিবার (২০ জানুয়ারি) সকালে নারায়ণগঞ্জ প্রেস ক্লাবের সামনে নারায়ণগঞ্জ সাংস্কৃতিক জোট আয়োজিত ‘সন্ত্রাস নয় শান্তি চাই, বাসযোগ্য নারায়ণগঞ্জ চাই’ দাবিতে মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশে তিনি এসব কথা বলেন।

 

প্রশাসনের উদ্দেশে এড. মাহবুবুর রহমান মাসুম আরও বলেছেন, আপনারা সময় মতো দায়িত্ব পালন করতে পারেন নাই। সময়মতো যদি দায়িত্ব পালন করতেন তাহলে আজকে এই ধরনের ঘটনা ঘটতো না। তাহলে আজকে প্রেস ক্লাবের সাধারন সম্পাদক সবুজ আহত হতো না, ১৪-১২ জন সাংবাদিক, শত শত মানুষ আজকে আহত হতো না।

 

আজকে তাই বলতে চাই অই পুলিশের মধ্যে আজকে যারা দায়িত্বে অবহেলা করেছে তাদেরকেও আজকে জবাবদিহিতার আওতায় আনতে হবে, তাদেরকেও বিচারের আওতায় আনতে হবে। তদন্ত করুন, কোন পুলিশ আজকে শামীম ওসমানের পদলেহন করে, অই মিছিলের ওপর হামলার সায় ছিল সেটা আপনারা দেখুন।

 

মাহবুবুর রহমান মাসুম বলেন, আমি বলতে চাই জেলা প্রশাসককে আজকে যারা অস্ত্রধারী, সে অস্ত্র আসলো কোথায় থেকে? বলা হয়েছে লাইসেন্স করা অস্ত্র। নারায়ণগঞ্জের জেলা প্রশাসকের কাছে আমি দাবি করতে চাই, জানতে চাই নারায়ণগঞ্জে কতটা অস্ত্রের লাইসেন্স দেয়া হয়েছে, তা অবিলম্বে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে প্রদান করুন। তাদের তালিকা প্রদান করুন, সেখানে কতজন সন্ত্রাসীকে এ পর্যন্ত লাইসেন্স করা অস্ত্র দেয়া হয়েছে সেটা আজেক আমাদের দেখতে হবে, সেটা আজকে আমাদের দেখার সময় এসে গেছে, অই সাত খুনের আসামি নূর হোসেন তার নামে ২২টা অস্ত্র ছিল বৈধ অস্ত্র, আজকে এ ধরনের সন্ত্রাসীদের, শামীম ওসমানের সন্ত্রাসীদের, নারায়ণগঞ্জের কুখ্যাত সন্ত্রাসীদের কার কার নামে আজকে বৈধ লাইসেন্স আছে, অস্ত্র আছে সেটা আজকে জেলা প্রশাসক আপনি জনসম্মুখে প্রকাশ করুন, গণমাধ্যমে প্রকাশ করুন। ২৪ ঘণ্টার মধ্যে আমি প্রকাশ করার দাবি জানাচ্ছি, তাহলে থলের বিড়াল বেরিয়ে আসবে। দেখবেন এই নারায়ণগঞ্জে যাদের নিরাপত্তা দরকার, যাদের জীবনের নিরাপত্তা প্রতিনিয়ত বিঘিœত হচ্ছে, তাদের কোন অস্ত্র নাই, তাদের কোন লাইসেন্স নাই, লাইসেন্স আছে অই শামীম ওসমানের টোকাইদের, লাইসেন্স আছে নিয়াজুলের, লাইসেন্স শাহ নিজামের, লাইসেন্স আছে আরো তার সমস্ত ক্যাডার বাহিনীর। এভাবেই আজকে সন্ত্রাসীরা প্রশাসনের ভিতর প্রশাসন থেকে প্রিভিলেন্স দিয়ে অস্ত্রের লাইসেন্স করে অস্ত্র পরিচালনা করে। আমরা এই অস্ত্রগুলোকে জব্দ করে এই লাইসেন্সগুলোকে বাতিল করার আহবান জানাই জেলা প্রশাসক আপনার কাছে।

 

প্রেস ক্লাব সভাপতি আরও বলেন, আমার সাংবাদিকরা আহত হয়েছে, পেশাগত দায়িত্ব পালন করতে গিয়ে। জেলা প্রশাসক, পুলিশ প্রশাসন থেকে টু-শব্দ নেই, এমনকি আহত সাংবাদিকদের দেখতে আসেননি। আমি প্রেস ক্লাবের প্রেসিডেন্ট হিসেবে বলতে চাই, আপনারা এই সাংবাদিকদের যারা আহত করলো তাদেরকে গ্রেফতার করুন আইনের আওতায় নিয়ে আসুন। অন্যথায় আমরা আন্দোলনে নামবো, আন্দোলনের কর্মসূচি দিতে বাধ্য হবো। আগামী কাল আমরা স্মারকলিপি দেবো জেলা প্রশাসক, পুলিশ প্রশাসনের কাছে। আর যদি এরপর কোন কিছু না হয়, তবে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী এ বিষয়ে আপনার দৃষ্টি আকর্ষণ করতে চাই।

 

অপসাংবাদিকতার বিরুদ্ধে প্রেস ক্লাব সভাপতি বলেন, কোন সাংবাদিক শামীম ওসমানের পা চাটে। বলতে চায় ঘটনার নেপথ্যে কারা ছিল। কেন বাবা! মিছিলে যাওয়া অন্যায়? মেয়র শান্তিপূর্ণভাবে হেঁটেছিল, তার সাথে আমরা হেঁটেছিলাম, তাই বলে নেপথ্যে কারা আছে, ত্বকী মঞ্চের লোকজন মেয়র আইভীকে ঠেলে সামনের দিকে নিয়ে গেছে, এই সমস্ত কথা বলে অই সাংবাদিকরা পার পাবেন না। নিজেদের ছেলে মেয়েদেরকে বিকেএমইতে চাকরি দেন, পা চাটেন, আবার বলেন, এই সমস্ত কথা লিখেন, এই সমস্ত কথা লিখে আপনাদের প্রভুদের খুশি করতে পারবেন, সাংবাদিকদের পারবেন না। আরেকটা কথা বলতে চাই, আমি স্পষ্ট করে বলতে চাই ডিসি এসপিকে আপনারা যদি সন্ত্রাসমুক্ত নারায়ণগঞ্জ উপহার দিতে না পারেন, যদি আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ব্যর্থ হয়, ডিসি-এসপি আপনাদেরকে সালাম, দয়া করে আপনারা নারায়ণগঞ্জ থেকে চলে যান।

 

মাহবুবুর রহমান মাসুম বলেন, আজকে শামীম ওসমান ৭১ টিভির বুলবুলকে হুমকি দিয়েছে। ওকে দেখে নিবে। শামীম ওসমান আপনে দেখাইয়েন। অনেক চ্যানেলের সাংবাদিক, অনেক সাংবাদিকের আপনি চাকরি খেয়েছেন, অনেক চ্যানেলের মালিকের পায়ে ধরেছেন, কান্নাকাটি করেছেন অনেক সাংবাদিকের চাকরি খেয়েছেন। কতদিন খাবেন, সাংবাদিকের হাতে কলম যতদিন থাকবে তারা সাংবাদিকতাই করবে। হয়তো বড় চ্যানেলে, ছোট চ্যানেলে, বড় পত্রিকায়, ছোট পত্রিকায় কিন্তু আপনি তাদের রুটি রুজি বন্ধ করতে পারবেন না। আপনি সৃষ্টিকর্তা না। বিধাতা না। আপনি যেভাবে সাংবাদিকদের হুমকি-ধামকি দেন আমরা সাংবাদিকরা ভয় পাইনা। আমরা আপনাকে ঘৃণা করি। আমরা আপনার পতন চাই, পতন দেখতে চাই। আপনি একজন হিটলারের মতো নারায়ণগঞ্জ শাসন করবেন? আমরা আপনাকে হিটলারের পরিণতি দেখাতে চাই।

পরিশেষে মাসুম বলেন, নারায়ণগঞ্জবাসীর কাছে মেয়রের সুস্থ্যতার জন্য দোয়া চাই। আহত সাংবাদিকদের জন্য দোয়া চাই।

নিউজটি শেয়ার করুন:

সর্বশেষ আপডেট



» নওগাঁয় ইউনিয়ন লিগ্যাল এইড কমিটির ওরিয়েন্টশন সভা অনুষ্ঠিত

» দশমিনায় সাংবাদিকদের উদ্যোগে ইফতার পার্টি

» ২দিন বিদ্যুৎ না থাকায় দশমিনা হাসপাতালের রোগীদের ভোগান্তি

» আর্জেন্টিনা বিশ্বকাপে সব ম্যাচেই হারবে: ম্যারাডোনা

» কলাপাড়ায় ৭০ লিটার দেশীয় চোলাই মদসহ আটক-১

» বান্দরবানে ৮০০ পিস ইয়াবা সহ ১ মাদক ব্যাবসায়ি আটক

» কলাপাড়ায় ইয়াবা ও গাঁজাসহ দুইজন আটক

» নাজিবের বাসভবন থেকে ৩ কোটি মার্কিন ডলার উদ্ধার

» জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামের ১১৯তম জন্মবার্ষিকীতে সর্বস্তরের মানুষের শ্রদ্ধা

» এবার ঈদযাত্রায় লঞ্চের অগ্রিম টিকিট বিক্রি ২৯ মে শুরু

লাইক দিয়ে সংযুক্ত থাকুন


ব্যবস্থাপনা সম্পাদক : মো: আবুল কালাম আজাদ, খোকন
প্রকাশক ও প্রধান সম্পাদক : কামাল হোসেন খান
সম্পাদক : এডভোকেট মো: ফেরদৌস খান
বার্তা সম্পাদক : মো: সো‌হেল অাহ‌ম্মেদ
মফস্বল বিভাগ প্রধান: উত্তম কুমার হাওলাদার
Email: info@kuakatanews.com
যোগাযোগ: বাড়ী- ৫০৬/এ, রোড- ৩৫,
মহাখালী, ডি ও এইচ এস, ঢাকা- ১২০৬,
ফোন: +৮৮ ০১৭৩১ ৬০০ ১৯৯, ৯৮৯১৮২৫,
বার্তা এবং বিজ্ঞাপন : + ৮৮ ০১৬৭৪ ৬৩২ ৫০৯।
বিজ্ঞাপন এবং নিউজ : + ৮৮ ০১৭১৬ ৮৯২ ৯৭০।
News: editor.kuakatanews@gmail.com
Desing & Developed BY PopularITLtd.Com
,

ডিসি এসপি আপনাদেরকে সালাম, দয়া করে নারায়ণগঞ্জ থেকে চলে যান- অড. মাসুম

বিশেষ প্রতিবেদক:- ডিসি এসপিকে উদ্দেশ্য করে প্রেস ক্লাব সভাপতি এড. মাহবুবুর রহমান মাসুম বলেছেন, আপনারা যদি সন্ত্রাসমুক্ত নারায়ণগঞ্জ উপহার দিতে না পারেন, আইনশৃঙ্খলা বাহিনী যদি ব্যর্থ হয়, ডিসি এসপি আপনাদেরকে সালাম, দয়া করে আপনারা নারায়ণগঞ্জ থেকে চলে যান।

 

শনিবার (২০ জানুয়ারি) সকালে নারায়ণগঞ্জ প্রেস ক্লাবের সামনে নারায়ণগঞ্জ সাংস্কৃতিক জোট আয়োজিত ‘সন্ত্রাস নয় শান্তি চাই, বাসযোগ্য নারায়ণগঞ্জ চাই’ দাবিতে মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশে তিনি এসব কথা বলেন।

 

প্রশাসনের উদ্দেশে এড. মাহবুবুর রহমান মাসুম আরও বলেছেন, আপনারা সময় মতো দায়িত্ব পালন করতে পারেন নাই। সময়মতো যদি দায়িত্ব পালন করতেন তাহলে আজকে এই ধরনের ঘটনা ঘটতো না। তাহলে আজকে প্রেস ক্লাবের সাধারন সম্পাদক সবুজ আহত হতো না, ১৪-১২ জন সাংবাদিক, শত শত মানুষ আজকে আহত হতো না।

 

আজকে তাই বলতে চাই অই পুলিশের মধ্যে আজকে যারা দায়িত্বে অবহেলা করেছে তাদেরকেও আজকে জবাবদিহিতার আওতায় আনতে হবে, তাদেরকেও বিচারের আওতায় আনতে হবে। তদন্ত করুন, কোন পুলিশ আজকে শামীম ওসমানের পদলেহন করে, অই মিছিলের ওপর হামলার সায় ছিল সেটা আপনারা দেখুন।

 

মাহবুবুর রহমান মাসুম বলেন, আমি বলতে চাই জেলা প্রশাসককে আজকে যারা অস্ত্রধারী, সে অস্ত্র আসলো কোথায় থেকে? বলা হয়েছে লাইসেন্স করা অস্ত্র। নারায়ণগঞ্জের জেলা প্রশাসকের কাছে আমি দাবি করতে চাই, জানতে চাই নারায়ণগঞ্জে কতটা অস্ত্রের লাইসেন্স দেয়া হয়েছে, তা অবিলম্বে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে প্রদান করুন। তাদের তালিকা প্রদান করুন, সেখানে কতজন সন্ত্রাসীকে এ পর্যন্ত লাইসেন্স করা অস্ত্র দেয়া হয়েছে সেটা আজেক আমাদের দেখতে হবে, সেটা আজকে আমাদের দেখার সময় এসে গেছে, অই সাত খুনের আসামি নূর হোসেন তার নামে ২২টা অস্ত্র ছিল বৈধ অস্ত্র, আজকে এ ধরনের সন্ত্রাসীদের, শামীম ওসমানের সন্ত্রাসীদের, নারায়ণগঞ্জের কুখ্যাত সন্ত্রাসীদের কার কার নামে আজকে বৈধ লাইসেন্স আছে, অস্ত্র আছে সেটা আজকে জেলা প্রশাসক আপনি জনসম্মুখে প্রকাশ করুন, গণমাধ্যমে প্রকাশ করুন। ২৪ ঘণ্টার মধ্যে আমি প্রকাশ করার দাবি জানাচ্ছি, তাহলে থলের বিড়াল বেরিয়ে আসবে। দেখবেন এই নারায়ণগঞ্জে যাদের নিরাপত্তা দরকার, যাদের জীবনের নিরাপত্তা প্রতিনিয়ত বিঘিœত হচ্ছে, তাদের কোন অস্ত্র নাই, তাদের কোন লাইসেন্স নাই, লাইসেন্স আছে অই শামীম ওসমানের টোকাইদের, লাইসেন্স আছে নিয়াজুলের, লাইসেন্স শাহ নিজামের, লাইসেন্স আছে আরো তার সমস্ত ক্যাডার বাহিনীর। এভাবেই আজকে সন্ত্রাসীরা প্রশাসনের ভিতর প্রশাসন থেকে প্রিভিলেন্স দিয়ে অস্ত্রের লাইসেন্স করে অস্ত্র পরিচালনা করে। আমরা এই অস্ত্রগুলোকে জব্দ করে এই লাইসেন্সগুলোকে বাতিল করার আহবান জানাই জেলা প্রশাসক আপনার কাছে।

 

প্রেস ক্লাব সভাপতি আরও বলেন, আমার সাংবাদিকরা আহত হয়েছে, পেশাগত দায়িত্ব পালন করতে গিয়ে। জেলা প্রশাসক, পুলিশ প্রশাসন থেকে টু-শব্দ নেই, এমনকি আহত সাংবাদিকদের দেখতে আসেননি। আমি প্রেস ক্লাবের প্রেসিডেন্ট হিসেবে বলতে চাই, আপনারা এই সাংবাদিকদের যারা আহত করলো তাদেরকে গ্রেফতার করুন আইনের আওতায় নিয়ে আসুন। অন্যথায় আমরা আন্দোলনে নামবো, আন্দোলনের কর্মসূচি দিতে বাধ্য হবো। আগামী কাল আমরা স্মারকলিপি দেবো জেলা প্রশাসক, পুলিশ প্রশাসনের কাছে। আর যদি এরপর কোন কিছু না হয়, তবে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী এ বিষয়ে আপনার দৃষ্টি আকর্ষণ করতে চাই।

 

অপসাংবাদিকতার বিরুদ্ধে প্রেস ক্লাব সভাপতি বলেন, কোন সাংবাদিক শামীম ওসমানের পা চাটে। বলতে চায় ঘটনার নেপথ্যে কারা ছিল। কেন বাবা! মিছিলে যাওয়া অন্যায়? মেয়র শান্তিপূর্ণভাবে হেঁটেছিল, তার সাথে আমরা হেঁটেছিলাম, তাই বলে নেপথ্যে কারা আছে, ত্বকী মঞ্চের লোকজন মেয়র আইভীকে ঠেলে সামনের দিকে নিয়ে গেছে, এই সমস্ত কথা বলে অই সাংবাদিকরা পার পাবেন না। নিজেদের ছেলে মেয়েদেরকে বিকেএমইতে চাকরি দেন, পা চাটেন, আবার বলেন, এই সমস্ত কথা লিখেন, এই সমস্ত কথা লিখে আপনাদের প্রভুদের খুশি করতে পারবেন, সাংবাদিকদের পারবেন না। আরেকটা কথা বলতে চাই, আমি স্পষ্ট করে বলতে চাই ডিসি এসপিকে আপনারা যদি সন্ত্রাসমুক্ত নারায়ণগঞ্জ উপহার দিতে না পারেন, যদি আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ব্যর্থ হয়, ডিসি-এসপি আপনাদেরকে সালাম, দয়া করে আপনারা নারায়ণগঞ্জ থেকে চলে যান।

 

মাহবুবুর রহমান মাসুম বলেন, আজকে শামীম ওসমান ৭১ টিভির বুলবুলকে হুমকি দিয়েছে। ওকে দেখে নিবে। শামীম ওসমান আপনে দেখাইয়েন। অনেক চ্যানেলের সাংবাদিক, অনেক সাংবাদিকের আপনি চাকরি খেয়েছেন, অনেক চ্যানেলের মালিকের পায়ে ধরেছেন, কান্নাকাটি করেছেন অনেক সাংবাদিকের চাকরি খেয়েছেন। কতদিন খাবেন, সাংবাদিকের হাতে কলম যতদিন থাকবে তারা সাংবাদিকতাই করবে। হয়তো বড় চ্যানেলে, ছোট চ্যানেলে, বড় পত্রিকায়, ছোট পত্রিকায় কিন্তু আপনি তাদের রুটি রুজি বন্ধ করতে পারবেন না। আপনি সৃষ্টিকর্তা না। বিধাতা না। আপনি যেভাবে সাংবাদিকদের হুমকি-ধামকি দেন আমরা সাংবাদিকরা ভয় পাইনা। আমরা আপনাকে ঘৃণা করি। আমরা আপনার পতন চাই, পতন দেখতে চাই। আপনি একজন হিটলারের মতো নারায়ণগঞ্জ শাসন করবেন? আমরা আপনাকে হিটলারের পরিণতি দেখাতে চাই।

পরিশেষে মাসুম বলেন, নারায়ণগঞ্জবাসীর কাছে মেয়রের সুস্থ্যতার জন্য দোয়া চাই। আহত সাংবাদিকদের জন্য দোয়া চাই।

নিউজটি শেয়ার করুন:

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



সর্বাধিক পঠিত



ব্যবস্থাপনা সম্পাদক : মো: আবুল কালাম আজাদ, খোকন
প্রকাশক ও প্রধান সম্পাদক : কামাল হোসেন খান
সম্পাদক : এডভোকেট মো: ফেরদৌস খান
বার্তা সম্পাদক : মো: সো‌হেল অাহ‌ম্মেদ
মফস্বল বিভাগ প্রধান: উত্তম কুমার হাওলাদার
Email: info@kuakatanews.com
যোগাযোগ: বাড়ী- ৫০৬/এ, রোড- ৩৫,
মহাখালী, ডি ও এইচ এস, ঢাকা- ১২০৬,
ফোন: +৮৮ ০১৭৩১ ৬০০ ১৯৯, ৯৮৯১৮২৫,
বার্তা এবং বিজ্ঞাপন : + ৮৮ ০১৬৭৪ ৬৩২ ৫০৯।
বিজ্ঞাপন এবং নিউজ : + ৮৮ ০১৭১৬ ৮৯২ ৯৭০।
News: editor.kuakatanews@gmail.com

© Copyright BY KuakataNews.Com

Design & Developed BY PopularITLimited